Dhaka ০৭:৪০ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২১ জুলাই ২০২৪, ৬ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কালকিনিতে পুর্ব শত্রুতার জেরে কৃষককে কুপিয়ে আহত

মাদারীপুর কালকিনি উপজেলার আলীনগর ইউনিয়নের সস্তাল উত্তর কোলচুরী গ্রামের মকবুল ঢালী(৫৫) নামে এক কৃষককে কুপিয়ে আহত করা হয়েছে।
রবিবার বিকেলে মাদারীপুর শহরের চৌরাস্তা এলাকায় এঘটনা ঘটে।আহত কৃষক মকবুল ঢালী(৫৫)কে চিকিৎসার জন্য সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ঘটনার বিবরনে কৃষক মকবুল ঢালী জানান, রবিবার সকালে একটি মামলায় হাজির হতে মাদারীপুর কোর্টে আসেন তিনি।হাজিরা শেষে বাড়ি ফেরার পথে শহরের চৌরাস্তা এলাকায় পৌঁছালে অটোরিকশা থেকে টেনে-হিচড়ে নামিয়ে পার্শ্ববর্তী উপজেলা ভবনের পেছনে নিয়ে যাওয়া হয় তাকে।পরে উপস্থিত ১৫/২০ জন সন্ত্রাসী চাইনিস কুড়াল দিয়ে তার দুই পায়ে কুপিয়ে ও সারা শরীরে হাতুড়ী দিয়ে একাধিক আঘাত করে ফেলে রেখে যান।এসময় তার সাথে থাকা একটি মোবাইল ও নগদ টাকা কেড়ে নেন তারা।পরে স্হানীয় লোকজন এসে তাকে উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে নিয়ে আসেন।হামলার কারন জানতে চাইলে তিনি বলেন,একই এলাকার মিলন মোল্লা (৩০) পিতা-মফেজ মোল্লা গং-দের সাথে স্হানীয় কিছু বিষয় নিয়ে বিরোধ চলে আসছিলো।ইতিপূর্বে একাধিক বার তাকে হামলার পরিকল্পনা করেন তারা।সুযোগ বুঝে আজ এঘটনা ঘটিয়েছে মিলন মোল্লা গং এরা।

এসময় আহতের স্বজনেরা হামলাকারীদের দৃষ্টান্তমুলক শাস্তির দাবি করেন। হামলার বিষয়ে মিলন মোল্লা জানান,এবিষয়ে তিনি কিছুই জানেননা।
এবিষয়ে কালকিনি থানা পুলিশ বলেন,বিষয়টি নিয়ে এখনও থানায় কেউ অভিযোগ করতে আসেনি।কোউ এলে এবিষয়ে উপযুক্ত ব্যবস্হা নেয়া হবে।

Tag :

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

About Author Information

Nazmul Haque

Popular Post

মাদারীপুর শহরে দুই গ্রুপের সংঘর্ষে আহত ৯

কালকিনিতে পুর্ব শত্রুতার জেরে কৃষককে কুপিয়ে আহত

Update Time : ১২:৩১:৩৮ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ৮ জুলাই ২০২৪

মাদারীপুর কালকিনি উপজেলার আলীনগর ইউনিয়নের সস্তাল উত্তর কোলচুরী গ্রামের মকবুল ঢালী(৫৫) নামে এক কৃষককে কুপিয়ে আহত করা হয়েছে।
রবিবার বিকেলে মাদারীপুর শহরের চৌরাস্তা এলাকায় এঘটনা ঘটে।আহত কৃষক মকবুল ঢালী(৫৫)কে চিকিৎসার জন্য সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ঘটনার বিবরনে কৃষক মকবুল ঢালী জানান, রবিবার সকালে একটি মামলায় হাজির হতে মাদারীপুর কোর্টে আসেন তিনি।হাজিরা শেষে বাড়ি ফেরার পথে শহরের চৌরাস্তা এলাকায় পৌঁছালে অটোরিকশা থেকে টেনে-হিচড়ে নামিয়ে পার্শ্ববর্তী উপজেলা ভবনের পেছনে নিয়ে যাওয়া হয় তাকে।পরে উপস্থিত ১৫/২০ জন সন্ত্রাসী চাইনিস কুড়াল দিয়ে তার দুই পায়ে কুপিয়ে ও সারা শরীরে হাতুড়ী দিয়ে একাধিক আঘাত করে ফেলে রেখে যান।এসময় তার সাথে থাকা একটি মোবাইল ও নগদ টাকা কেড়ে নেন তারা।পরে স্হানীয় লোকজন এসে তাকে উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে নিয়ে আসেন।হামলার কারন জানতে চাইলে তিনি বলেন,একই এলাকার মিলন মোল্লা (৩০) পিতা-মফেজ মোল্লা গং-দের সাথে স্হানীয় কিছু বিষয় নিয়ে বিরোধ চলে আসছিলো।ইতিপূর্বে একাধিক বার তাকে হামলার পরিকল্পনা করেন তারা।সুযোগ বুঝে আজ এঘটনা ঘটিয়েছে মিলন মোল্লা গং এরা।

এসময় আহতের স্বজনেরা হামলাকারীদের দৃষ্টান্তমুলক শাস্তির দাবি করেন। হামলার বিষয়ে মিলন মোল্লা জানান,এবিষয়ে তিনি কিছুই জানেননা।
এবিষয়ে কালকিনি থানা পুলিশ বলেন,বিষয়টি নিয়ে এখনও থানায় কেউ অভিযোগ করতে আসেনি।কোউ এলে এবিষয়ে উপযুক্ত ব্যবস্হা নেয়া হবে।