রাজাপুরে আওয়ামী লীগ অফিসে অগ্নিসংযোগ

প্রকাশিত: ৪:৫১ অপরাহ্ণ, জুন ১৮, ২০২১ | আপডেট: ৪:৫১:অপরাহ্ণ, জুন ১৮, ২০২১

ঝালকাঠির রাজাপুরে আওয়ামী লীগ অফিসে অগ্নিসংযোগ করেছে দুর্বৃত্তরা। এতে অফিসে থাকা জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছবি সহ কাঠের রৈী অফিস ঘর ও অসবাবপত্র পুড়ে গেছে।
ঈুলিশ ও এলাকাবাসি জানায়, বৃহষ্পতিবার গভীর রাতে উপজেলার গালুয়া ইউনিয়নের চাড়াখালি বাজারে এ অগ্নিসংযোগের ঘটনা ঘটে। মুহুর্তের মধ্যে আগুনের লেলিহান শিখা কাঠ দিয়ে নির্মিত টিনসেট পরো অফিস ঘরটিতে ছড়িয়ে পড়ে। রাজনৈতিক প্রতিপক্ষের কিছু দুর্বৃত্ত এ ঘঁনা ঘটিয়েছে বলে স্থনীয় আওয়ামী লীগ নেতাদেও দাবী। খবর পেয়ে রাজাপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) ঘটনাস্থল পরিদর্,ন করেছেন। তবে এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত পুলিশ কাউকে গেস্খফতার করতে পারেনি।
ঘঁনাস্থল পরিদর্শন শেষে স্থানীয় আওয়ামী লীগ সভাপতি লোকমান হোসেন মল্লিক বলেন,“রাত ৩ টার দিকে মোবাইল ফোনে খবর পাই , আমাদেও বাজারের অফিসে অগ্নিসংযোগ করা হয়েছে। এ ব্যাপাওে আমাদেও ব্যাক্তিগত অভিমত, রাজিৈতক প্রতিপক্ষরা আওয়ামী লেিগর কর্মীসমর্থকদের আতঙ্কিত করে তারা ঘোলা পানিতে মাছ শিকারের চেষ্টা করছে। এবং আগামী ২১ জুন ইউনিয়ন পরিষদেও নির্বাচনকে সামনে রেখে ভোটারদেও মাঝে আতঙ্ক সৃষ্টি করার নীল নকশা তৈরী করছে। আমরা অরয়ামী লীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ সহ স্থানীয় জনতা সেটা প্রতিহত করবে। আপনারা আরও জানেন যে, আমাদেও চারাখালি ভোটকন্দ্রে উপজেলার কাশ্মীর নামে অভিহিত।অুীতের নির্বাচনগুলোর মতো এবারও রাজনৈতিক প্রতিপক্ষ কাশ্মির কান্ডের পুনরাবৃত্তি করতে চায়। আমরা এ ব্যাপাওে প্রশাসনের শক্ত হস্তক্ষেপ চাই এবং দৃর্বৃত্তদের দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তি কামনা করছি।”
এ বিষয়ে রাজাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শহিদুল ইসলাম জানান,“পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে অগ্নিসংযোগ দেয়া চাড়াখালি বাজারের আওয়ামী লীগ অফিস পরিদর্শন করেছেন। অগ্নিসংযোগের সত্যতা পাওয়া গেছে। দুস্কৃতশারীদেও শনাক্তে পুলিশ তৎপর রয়েছে। তবে আওয়ামী লেিগর পক্ষ থেকে কোন লিখিত অভিযোগ বা মামলা দায়ের এখনো করা হয়নি। অভিযোগ পেলেই তদন্ত সাপেক্ষে প্রকৃত দোষীদেও খুঁজে বের কওে তাদেও বিরুদ্ধে আইনি ব্যাবস্থা গ্রহন করা হবে।”

Print Friendly, PDF & Email