পালিয়ে থেকেও রক্ষা পেল না আসামী আলম শরীফ

জি এম নিউজ জি এম নিউজ

বাংলার প্রতিচ্ছবি

প্রকাশিত: ৫:৪৭ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ১৮, ২০২১ | আপডেট: ৫:৪৭:অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ১৮, ২০২১

বরিশাল নগরীর ২৮ নং ওয়ার্ডের শেরে বাংলা সড়কের মা মঞ্জিলের বাসিন্দা ও ছোট ভাইয়ের স্ত্রী বিলকিস বেগমকে কুপিয়ে হত্যার করার পর দীর্ঘ ৭টি বছর বরিশালের বাহিরের বিভিন্নস্থানে ছদ্মনাম ব্যবহার করে পালিয়ে থেকেও রক্ষা পেল না আসামী আলম শরীফ। অবশেষে বরিশাল মেট্রোপলিটন এয়ারপোর্ট থানার একদল পুলিশের হাতে গ্রেফতার হয়েছে।

পুলিশ ও মামলা সূত্রে জানা যায়- ২০১৩ সালের ১৪ ডিসেম্বর রাত সাড়ে ৮টার দিকে বিলকিস বেগমের ভাসুর মোঃ আলম শরীফ ব্যাংকের চেক চুরি করে সেখানে ১লক্ষ টাকা লিখে এনে বিলকিসকে স্বাক্ষর করতে বলে। এক পর্যায়ে ভাসুর আলম শরীফ ও ছোট ভাই ছালাম শরীফ তার ভাই বাদশার স্ত্রী বিলকিসের সাথে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে ভাতিজা ইমন শরীফ (১৪) এর সামনে ধারালো অস্ত্র দিয়ে হত্যা করার উদ্দেশ্যে বিভিন্নস্থানে কুপিয়ে জখম করে পালিয়ে যায়। পরবর্তীতে বিলকিস বেগমকে প্রথমে বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও পরবর্তীতে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আইসিউতে ৫১ দিন চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করে বিলকিস।

এ ঘটনায় বিলকিসের পিতা মফিজ উদ্দিন বাদী হয়ে এক মাত্র আলম শরীফকে আসামী করে (বিএমপি) এয়ারপোর্ট থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।

এদিকে সেদিনের প্রত্যক্ষদর্শী ছেলে ইমন শরীফ বলেন, তার মা হত্যা হওয়ার মামলা তুলে নিতে আসামীর পক্ষ থেকে তাদেরকে বিভিন্নভাবে ভয় ভীতি প্রদর্শন করা হয়েছে।

সোমবার দুপুরে আলম শরীফকে আদালতে সোপর্দ করার মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে বলে এয়ারপোর্ট থানা থেকে বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়।