বাবার সাথে দেখা হলোনা মেয়েদের, বীরগঞ্জে সড়ক দূর্ঘটনায় ৩ বোন সহ ৭ জন নিহত

এন.আই.মিলন এন.আই.মিলন

দিনাজপুর প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ১১:৪৬ অপরাহ্ণ, জুলাই ৬, ২০২০ | আপডেট: ১১:৪৭:অপরাহ্ণ, জুলাই ৬, ২০২০

এন.আই.মিলন, দিনাজপুর প্রতিনিধি- দিনাজপুরের বীরগঞ্জে বাবাকে দেখতে যাওয়ার পথে বিআরটিসির চাপায় ৩ বোন ও ভ্যান চালক সহ সড়ক দূর্ঘটনায় ৭ জন নিহত।

উপজেলার মোহাম্মদপুরের রনপাড়া গ্রামে বাবা নেসার উদ্দিনকে দেখতে যাওয়ার পথে ৬ জুলাই দুপুর ২টার সময় সাতোর ইউনিয়নের ২৫ মাইল নামক স্থানে ঢাকা-পঞ্চগড় মহাসড়কে পঞ্চগড় হতে রংপুর গামী বিআরটিসি গাড়ী ঢাকা মেট্রো-ব-১১-২১৫৩ এর চাপায় ব্যাটারী চালিত ভ্যান চালক, ৩ বোন সহ আরোহী ৭ জন নিহত হয়।

ঘটনা স্থলেই ২টি বাচ্চা সহ ৪ জন, বীরগঞ্জ হাসপাতালে নেওয়ার পথে ভ্যান চালক ১ জন ও দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাল (দিমেক) নেওয়ার পথে ২ জন নিহত হয়।

ঘটনা স্থলেই নিহত নাসরিন আক্তার এর স্বামী বীরগঞ্জ উপজেলার ভোগনগর ইউনিয়নের ভাবকী গ্রামের ইদ্রীস আলী জানায়, তার স্ত্রী নাসরিন আক্তার (৪০) কন্যা রুপা আক্তার (৮), (দিমেক হাসপালে নেওয়ার পথে) সুজালপুর ইউনিয়নের মুড়ীয়ালা গ্রামের আতিয়ার রহমানের স্ত্রী নার্গীস আক্তার (৩০), কাহারোল উপজেলার দেবীপুর গ্রামের আবুল হোসেনের স্ত্রী আসমা বেগম (৫০), (দিমেক হাসপালে নেওয়ার পথে) আবুল হোসেন (৬০), আবুল হোসেনের নাতনী সোবাহান আলী সাহান আলীর কন্যা লামীয়া আক্তার (১২) ও (বীরগঞ্জ হাসপাতালে নেওয়ার পথে) কাহারোল উপজেলার দেবীপুর প্রশাদপাড়া/খালপাড়া গ্রামের ভ্যান চালক (অজ্ঞাত) মারা যায়।

সংবাদ পেয়ে বীরগঞ্জ সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার মোঃ আব্দুল ওয়ারেশ ওসি আব্দুল মতিন প্রধান, হাইওয়ে পুলিশের ওসি শামসুজ্জামান নুর ঘটনাস্থলে গিয়ে উত্তেজিত জনতাকে শান্ত করে ও সড়ক যোগাযোগ স্বাভাবিক করেন এবং এলাকাবাসীর দাবীর মুখে ঘটনা স্থল হতেই মৃতদের পরিবারের কাছে হস্তান্তর করেন।