ঝালকাঠিতে জুয়া ও মাদক রুখতে এলাকাবাসীর প্রতিবাদ সমাবেশ

প্রকাশিত: ৭:২৭ অপরাহ্ণ, আগস্ট ২৪, ২০১৯ | আপডেট: ৭:২৭:অপরাহ্ণ, আগস্ট ২৪, ২০১৯

ঝালকাঠি সদর উপজেলার গাবখান হাট এলাকায় সন্ধ্যা হলেই একটি মিলঘর ও বাদামতলায় প্রকাশ্যে জুয়া ও মাদকের আসর বসে বলে অভিযোগ রয়েছে। আসরের আয়োজকরা প্রভাবশালী হওয়ায় এতোদিন প্রকাশ্যে কেউ প্রতিবাদ করতে সাহস না পেলেও এবার জুয়া ও মাদকের আসরের বিরুদ্ধে ফুঁসে উঠেছে এলাকাবাসী। তাই জুয়া ও মাদক নিজেদেও বাচাঁতে আজ শনিবার (২৪ আগষ্ট) বিকেলে ধানসিড়ি মাধ্যমিক বিদ্যালয় চত্ত¡রে প্রতিবাদ সমাবেশ করেছে এলাকাবাসী।
সমাবেশে বক্তৃতা করেন, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সদস্য, জাতীয় পর্যায়ের শেখ রাসেল ক্রিড়া চক্রের কৃতি খেলোয়ার মোঃ বশির তালুকদার। এসময় উপস্থিত ছিলেন, এলাকার বায়োজ্যষ্ঠ ব্যক্তিত্ব হাজী মোকছেদ আলী খলিফা, গাবখান হাট জামে মসজিদের ইমাম হাফেজ মোঃ মাহবুব, প্রবীণ ব্যক্তিত্ব মোফাজ্জেল মোল­া, মোহাম্মদ আলী তালুকদার, মোঃ গিয়াসউদ্দিনসহ বিপুল সংখ্যক লোকজন।
বশির তালুকদার লিখিত বক্তৃতায় জানান,‘এলাকার শান্তি শৃঙ্খলা বজায় রাখতে এই এলাকাকে জুয়া ও মাদক মুক্ত করতে সবসময়ই এলাকাবাসীকে সাথে নিয়ে সচেষ্ট আছি। এলাকার একটি মিল ঘরে ও বাদামতলায় প্রতিদিন সন্ধ্যা হলেই প্রকাশ্যে জুয়া ও মাদকের আস বসে। পুলিশের কাছে সেই তথ্য দিলে তারা ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠে। পুলিশের বিচক্ষণতায় অভিযান চালিয়ে গত ২১ আগস্ট সাইদুল ইসলাম নামের একজনকে ইয়াবাসহ আটক করলেও ১দিন পরেই ছাড়া পেয়ে এলাকায় এসে বিভিন্ন ষড়যন্ত্র শুরু করে। একপর্যায়ে সাইদুলের মোটর সাইকেলে ইয়াবা রেখে আমি (খেলোয়ার বশির তালুকদার) তাকে আটক করিয়েছে বলে অপপ্রচার শুরু করে। ঘটনার দিন ও সময় আমি এলাকায় ছিলাম না, বরিশালে দুলাভাই মারা যাওয়ায় সেখানেই ছিলাম। ষড়যন্ত্রের অংশ হিসেবে কয়েকজন বিতর্কিত সাংবাদিকদের দিয়ে সংবাদ সম্মেলন করে অপ্রচলিত পত্রিকায় উদ্দেশ্যমূলক সংবাদ প্রকাশ করায়। যা দিয়ে আমাকে ফাঁসানোর চেষ্টা চলছে’। এলাকাকে মাদকমুক্ত ও শান্ত রাখতে ষড়যন্ত্র এবং হয়রাণি থেকে রক্ষা পেতে আইনশৃঙ্খলার বাহিনীর হস্তক্ষেপ কামনা করেন খেলোয়ার বশির তালুকদার ও এলাকাবাসী।