পল্লীবন্ধু এরশাদের জন্ম না হলে বাংলার অনগ্রসর গ্রামে প্রাণের সঞ্চার হতনা

৯০ তম জন্মদিনের আলোচনায় আনিস চৌধুরী

জি এম নিউজ জি এম নিউজ

বাংলার প্রতিচ্ছবি

প্রকাশিত: ১২:৪১ অপরাহ্ণ, মার্চ ২১, ২০১৯ | আপডেট: ১২:৪১:অপরাহ্ণ, মার্চ ২১, ২০১৯

মোঃ আলা উদ্দিনঃ চট্টগ্রাম মহানগর জাতীয় পার্টির সহ-সভাপতি আনিসুল ইসলাম চৌধুরী বলেছেন পল্লীবন্ধু আলহাজ্ব হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদের জন্ম না হলে বাংলাদেশের অনগ্রসর গ্রামীন জনপদ আলোকিত হতোনা। জাতীয় পার্টির ৯ বছরের শাসনামলে পল্লীবন্ধু এরশাদ ২০০ শত বছরের উপনিবেশিক শাসনামলের জঞ্জাল থেকে দেশকে মুক্ত করতে প্রশাসনিক বিকেন্দ্রীকরণের মাধ্যমে উপজেলা পদ্ধতি চালু করেছিলেন। ২০টি মহকুমাকে ৬৪ জেলায় উন্নীত করেছিলেন। ঢাকা-চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন সৃষ্টি করেছিলেন। নারী নির্যাতন বিরোধী আইন, সন্ত্রাস বিরোধী আইন, ঔষধনীতি, জাল যার জলা তার নীতি প্রনয়ন করেছিলেন মানুষের কল্যাণে। জনতার কল্যাণে কাজ করে পল্লীবন্ধু আজ জীবন্ত কিংবদন্তীতে পরিণত হয়েছেন।

 

 

তিনি পল্লীবন্ধুর দীর্ঘায়ু কামনা করেন। তিনি ২০ মার্চ বিকাল ৪টায় সাবেক রাষ্ট্রপতি জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান ও প্রধান বিরোধী দলীয় নেতা পল্লীবন্ধু এরশাদের ৯০ তম জন্মদিন উপলক্ষে চট্টগ্রাম মহানগর জাতীয় পার্টি আয়োজিত আলোচনা সভায় সভাপতির বক্তব্যে উপরোক্ত কথা বলেন। চট্টগ্রাম একাডেমী হলে নগর জাপা সাংগঠনিক সম্পাদক রেজাউল করিম রেজার সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত সভায় অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন নগর জাপা যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক নিজাম উদ্দিন জ্যাকি, সাংগঠনিক সম্পাদক জহুরুল ইসলাম রেজা, গণতন্ত্রী পার্টির চট্টগ্রাম জেলার সাধারণ সম্পাদক স্বপন সেন, শ্রমিক পার্টির কেন্দ্রী সহ-সভাপতি আলহাজ্ব সিরাজুল ইসলাম মাস্টার, নগর যুব সংহতির সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক নুরুল বশর সুজন, সাংগঠনিক সম্পাদক মেজবাহ উদ্দিন তুষার, নগর সাংস্কৃতিক পার্টির সাধারণ সম্পাদক শাহাদাত হোসেন স্বপন, সহ-সভাপতি ফিরোজ আনোয়ার, ফারুকুল ইসলাম, রফিকুল ইসলাম বাদল, আইনুল ইসলাম সুমন, সাংগঠনিক সম্পাদক হাজী আলি আকবর, সাংবাদিক রোজি চৌধুরী, জাপা নেতা সেলিম উদ্দিন চৌধুরী, পল্লীবন্ধু ছাত্র পরিষদ সভাপতি মোঃ ফয়সাল, নগর ছাত্র সমাজ নেতা মোঃ মহিউদ্দিন, ওসামা বিন আলি, আবু হাসান প্রমুখ।