জলবায়ু সহনশীল উপকূলীয় বাঁধ নির্মাণে পাউবো’র পুনর্বিন্যাস প্রয়োজন

বরিশালে সেমিনারে বক্তারা

প্রকাশিত: ৬:৪৩ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ১৮, ২০১৮ | আপডেট: ৭:১৮:অপরাহ্ণ, অক্টোবর ১৮, ২০১৮

জলবায়ু পরিবর্তন সহনশীলতা অর্জনে টেকসই উপকূলীয় বাঁধ নির্মাণ ও দুর্যোগকালীন নিরাপত্তার উপর গুরুত্বারোপ করে পানি উন্নয়ন বোর্ডের (পাউবো) পূণর্বিন্যাস ও জনবান্ধব নীতিমালা প্রনয়নের দাবি তুলেছেন বরিশালে এক সেমিনারের বক্তারা।

নগরীর একটি রেস্টুরেন্টে “জলবায়ু পরিবর্তন সহনশীল উপকূলীয় বাঁধ নির্মাণ ও টেকসই নিরাপত্তায় প্রয়োজন পানি উন্নয়ন বোর্ডের সংস্কার” শীর্ষক এই সেমিনারে বক্তাগণ এসব কথা বলেন।

উন্নয়ন সংস্থা সমন্বিত সমাজ উন্নয়ন সংস্থা (আইসিডিএ) ও কোস্ট ট্রাস্ট যৌথভাবে এই সেমিনারটির আয়োজন করে। আইসিডিএর নির্বাহী পরিচালক আনোয়ার জাহিদের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বরিশাল ২ আসনের সংসদ সদস্য তালুকদার মোঃ ইউনুস।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ডের বিভাগীয় প্রধান প্রকৌশলী মোঃ সাজিদুর রহমান সরদার ও বরিশাল সদর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান রেহানা বেগম।

ম্যাপের নির্বাহী পরিচালক শুভংকর চক্রবর্তীর সঞ্চালনায় সেমিনারে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন কোস্ট ট্রাস্টের ফাহমিদা আমিন। মূল প্রবন্ধে তিনি উপকূলীয় এলাকায় বাঁধ নির্মান পকিল্পনা গ্রহণ, বাস্তবায়ন এবং পরিবীক্ষণ পর্যায়ে স্থানীয় জনগণ এবং তাদের নির্বাচিত জনপ্রতিনিধিকে প্রাতিষ্ঠানিকভাবে যুক্ত করতে আহ্বান জানান।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে সংসদ সদস্য তালুকদার মোঃ ইউনুস বলেন, নদী ভাঙ্গন আমাদের দক্ষিণ অঞ্চলের অন্যতম প্রধান সমস্যা। জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে আমরা নিত্যদিন নদী ভাঙ্গনের কবলে পরছি। এই অবস্থা থেকে উত্তরনের জন্য তৃনমূল পর্যায় থেকে নীতি নির্ধারনী পর্যায় পর্যন্ত সকলকে দায়িত্বশীল ভূমিকা পালন করতে হবে।

পাউবো’র বিভাগীয় প্রধান প্রকৌশলী মোঃ সাজিদুর রহমান সরদার বলেন, বিদ্যমান পোল্ডারগুলো ষাটের দশকে নির্মিত হয়েছে, অর্থনৈতিক ও কৃষি বিপ্লবের জন্য ঐ সময়ে আমরা তা নির্মাণ করেছি। ষাটের দশকের নির্মিত অবকাঠামো নিয়ে এখন আলোচনা সময়ের দাবী। এর সংস্কারে আমাদের সামাজিক আন্দোলন গড়ে তুলতে হবে।

সেমিনারে দেহেরগতি ইউনিয়নের চেয়ারম্যান জনাব মোঃ মশিউর রহমান, চরবাড়িয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান জনাব মোঃ মাহতাব হোসেন সুরুজ, রহমতপুর ইউনিয়ন চেয়ারম্যার জনাব সরোয়ার মাহমুদ, চাঁদপাশা ইউনিয়নের প্যানেল চেয়ারম্যান জনাব মোঃ শাহজাহান সিকদার প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

বক্তারা বলেন, বাঁধ নির্মাণ ও ব্যবস্থাপনার ক্ষেত্রে পানি উন্নয়ন বোর্ডের কার্যক্রমের অনেক বিষয় বিকেন্দ্রীকরন করা উচিৎ। এ জন্য একটি গণতান্ত্রিক, স্থানীয়ভাবে দায়বদ্ধ ও জনঅংশগ্রহনমূলক ব্যবস্থাপনা নীতিমালা প্রয়োজন।দুর্যোগপ্রবণ এলাকাগুলোতে বাঁধ রক্ষণাবেক্ষণে পানি উন্নয়ন বোর্ডের অবহেলা ও অব্যবস্থাপনা রয়েছে- এমন অভিযোগ তুলে এ দায়িত্ব স্থানীয় সরকারকে দেওয়ার সুপারিশ করেছেন কয়েকজন জনপ্রতিনিধি।

এছাড়াও বাঁধ অব্যবস্থাপনায় ক্ষতিগ্রস্থ কয়েকজনও এতে অংশ নেন। তারা স্বচ্ছ প্রক্রিয়ায় জনগনের অংশগ্রহণ বাড়াতে কর্মসুচি বাস্তবায়নের উপর নাগরিক সমাজের পর্যালোচনা ও মূল্যায়ন যেন সরকার গ্রহণ করে সেই ধরনের আইনী কাঠামো প্রণয়নের উপর বক্তারা গুরুত্বারোপ করেন।