বরিশালে বন্ধ রয়েছে কোচিং সেন্টার

প্রকাশিত: ৯:৩৪ পূর্বাহ্ণ, জানুয়ারি ২৮, ২০১৮ | আপডেট: ৯:৩৪:পূর্বাহ্ণ, জানুয়ারি ২৮, ২০১৮

বরিশাল :

মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট ও সমমানের পরীক্ষায় প্রশ্নপত্র ফাঁস রোধে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের ঘোষণা অনুযায়ী  শনিবার দ্বিতীয় দিনের ন্যায় বরিশালে কোচিং সেন্টারগুলোয় তাদের মাধ্যমিক পর্যায়ের কোচিং বন্ধ রেখেছে।  তবে সব ধরণের কোচিং সেন্টার বন্ধ থাকবে কিনা এনিয়ে বিস্তর না জানায় অষ্টম শ্রেণী ও একাদশ শ্রেণী পর্যায়ের কোচিংগুলো চলমান রয়েছে। সূত্রমতে বরিশালে দেড়শতাধিক কোচিং সেন্টারের মধ্যে এসএসসি পর্যায়ে ২৫ টি কোচিং সেন্টার রয়েছে। যেগুলো সরকারের সিদ্ধান্ত মেনে বন্ধ রয়েছে। অভিবভাকদের দাবী, কেবল কোচিং সেন্টার বন্ধ রেখে প্রশ্নপত্র ফাঁসরোধ করা যাবেনা। যেখান থেকে প্রশ্ন ছাপানো হয় সেখানে সরকারের নজরদারী বৃদ্ধি করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির ব্যবস্থা করলেই সুফল পাওয়া যাবে। পাশাপাশি আবাসিক এলাকায় যেসব শিক্ষক কোচিং করিয়ে থাকেন তাদের প্রতিও প্রশাসনের নজরদারি বাড়ানোর কথাও বলছেন অভিভাবকরা। আর কোচিং সেন্টারের পরিচালকরা জানান, তারা এখন পর্যন্ত কোন নোটিশ বা চিঠি পাননি কোন কোন পর্যায়ের কোচিং সেন্টার বন্ধ রাখতে হবে। তারা কেবল এসএসসি পর্যায়ের কোচিং বন্ধ রেখেছেন। অন্যগুলোর কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছেন। এ ব্যাপারে অধ্যাপক নাজমুল হোসেন আকাশ নামের এক শিক্ষক বলেন, যারা শিক্ষার নামে ব্যবসা করছে তাদের মানসিকতা পরিবর্তন করতে হবে। সভা সেমিনার করে কোচিং সেন্টার বন্ধ করা যাবেনা। এক্ষেত্রে অভিভাবকদের সিদ্ধান্ত নিতে হবে তাদের সন্তানদের আদর্শ মানুষ হিসেবে গড়তে চান কিনা।