বরগুনার আমতলীতে তিন চিকিৎসককে ২০ হাজার টাকা অর্থদন্ড।

আল নোমান আল নোমান

বরগুনা প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ১২:৪০ পূর্বাহ্ণ, জানুয়ারি ১৭, ২০২২ | আপডেট: ১২:৪০:পূর্বাহ্ণ, জানুয়ারি ১৭, ২০২২

অবৈধভাবে রোগী দেখে ব্যবস্থাপত্র দেয়ার অভিযোগে আমতলী পৌর শহরের তিনি চিকিৎসককে ২০ হাজার টাকা অর্থ দন্ড করা হয়েছে। শনিবার রাতে আমতলী উপজেলা ভ্রাম্যমান আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ নাজমুল ইসলাম এ অর্থ দন্ডাদেশ দেন।
জানাগেছে, আমতলী পৌর শহরের একে স্কুল সড়কের কেএম আসাদুজ্জামান জাফর, হাসপাতালের সামনে এলাহী মোল্লা ও সরকারী কলেজ সড়কে কেশব চন্দ্র শীল গত ২০ বছর ধরে রোগী দেখে ব্যবস্থাপত্র দিয়ে আসছেন। কিন্তু বাস্তবে ওই তিন চিকিৎসকের রোগী দেখার বৈধ কাগজপত্র নেই। শনিবার আমতলী উপজেলা ভ্রাম্যমান আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ নাজমুল ইসলাম অভিযান চালিয়ে তিন ভুয়া চিকিৎসককে আটক করেন। পরে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইনের ৫০ ধারায় কেএম আসাদুজ্জামান জাফরকে ৫ হাজার, এলাহী মোল্লাকে ৮ হাজার এবং কেশব চন্দ্র শীলকে ৭ হাজার টাকা অর্থ দন্ড করে মুচলেকা রেখে ছেড়ে দেন।
আমতলী উপজেলা ভ্রাম্যমান আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও সহকারী কমিশনার (ভুমি) মোঃ নাজমুল ইসলাম বলেন, ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইনের ৫০ ধারায় তিন চিকিৎসককে ২০ হাজার টাকা অর্থ দন্ড করা হয়েছে।

Print Friendly, PDF & Email