যাত্রীদের দুর্ভোগ লাঘব : ১৯ দিন পরে বরিশাল থেকে ১০টি রুটে বাস চলাচল শুরু

জি এম নিউজ জি এম নিউজ

বাংলার প্রতিচ্ছবি

প্রকাশিত: ১০:১০ পূর্বাহ্ণ, জানুয়ারি ২২, ২০১৮ | আপডেট: ১০:১০:পূর্বাহ্ণ, জানুয়ারি ২২, ২০১৮
যাত্রীদের দুর্ভোগ লাঘব : ১৯ দিন পরে বরিশাল থেকে ১০টি রুটে বাস চলাচল শুরু

মনবীর সোহান: অবশেষে দীর্ঘ ১৯ দিন পরে বরিশাল থেকে ঝালকাঠি, পিরোজপুর এবং খুলনা সহ সরাসরি পশ্চিমাঞ্চলিয় ১০টি রুটে বাস চলাচল শুরু হয়েছে। যাত্রীদের সিমাহিন দুর্ভোগ লাঘব হয়েছে। রোববার বরিশাল বিভাগীয় কমিশনার কার্যালয়ে এক বৈঠকের মাধ্যমে বাস চলাচলের সিদ্ধান্ত হয়। পাশাপাশি বরিশাল-কুয়াকাটা রুটে ঝালকাঠি বাস মালিক সমিতির বাস চলাচলের বিষয় নিয়ে পুনরায় ২১ সদস্য বিশিষ্ট একটি কমিটি গঠন করে দেয়া হয়েছে।

বরিশালের অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনারকে প্রধান করে গঠিত কমিটিতে বরিশাল, পটুয়াখালী, বরগুনা এবং ঝালকাঠি জেলা প্রশাসক, পুলিশ সুপার, চার বাস মালিক সমিতির ৮জন প্রতিনিধি, চারজন শ্রমিক প্রতিনিধিকে সদস্য করা হয়েছে। ওই কমিটি দাবী দাওয়া এবং সমস্যা সমাধান এবং চিহ্নিত করনের বিষয়ে পর্যালচনা এক কাজ করবে। এর পরে আগামী ১০ ফেব্রুয়ারী বৈঠকের মাধ্যমে এ বিষয়ে চুড়ান্ত সিদ্ধান্ত হবে বলে বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয়েছে। বরিশাল বিভাগের অতিরিক্ত কমিশনার মো. নুরুল আলম এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে গতকাল বেলা ১১টায় বরিশাল বিভাগীয় কমিশনার মো. শহিদুজ্জামান এর সভাপতিত্বে বৈঠকে বরিশাল রেঞ্জ এর ডিআইজি মো. শফিকুল ইসলাম, অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার মো. নুরুল আলম, বরিশাল, ঝালকাঠি, পটুয়াখালী এবং বরগুনা জেলা’র জেলা প্রশাসক, জেলা পুলিশ সুপার, বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনারের প্রতিনিধি, ঝালকাঠি জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সরদার শাহ আলম সহ চার জেলার বাস মালিক সমিতির সভাপতি-সাধারণ সম্পাদক এবং শ্রমিক ইউনিয়নের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

বরিশাল-পটুয়াখালী মিনিবাস মালিক সমিতির সাবেক সভাপতি আজিজুর রহমান শাহিন জানান, বিভাগীয় প্রশাসনের বৈঠকে সিদ্ধান্ত অনুযায়ী রোববার দুপুর ১টায় বরিশাল থেকে সরাসরি ঝালকাঠি সহ পশ্চিমাঞ্চলের সকল রুটে বাস চলাচল শুরু হয়েছে। এমনকি ঝালকাঠি’র বাসও বরিশালে আসছে বলে জানিয়েছেন তিনি।

উল্লেখ্য, বরিশাল-পটুয়াখালী মিনিবাস মালিক সমিতির বাস ঝালকাঠি হয়ে ১০টি রুটে চলাচল করলেও ঝালকাঠি সমিতির বাস বরিশাল হয়ে অন্য কোন রুটে চলাচল করতে পারছে না। ঝালকাঠি সমিতি বরিশালের ৩ কিলোমিটার রাস্তা ব্যবহার করায় বরিশাল সমিতিকে ঝালকাঠি হয়ে ১০টি রুটে বাস চলতে দিতে হচ্ছে।

তাছাড়া বরিশাল এবং পটুয়াখালী সমিতির বাস ঝালকাঠি জেলার নলছিটি উপজেলার ৮ কিলোমিটার সড়ক ব্যবহার করে বরিশাল-কুয়াকাটা রুটে চলাচল করছে। কিন্তু ওই রুটে ঝালকাঠি’র কোন বাস চলতে দেয়া হচ্ছে না। দীর্ঘ দিন ধরেই ওই রুটে বাস চলাচলের দাবী জানিয়ে আসছে ঝালকাঠি সমিতির নেতৃবৃন্দ।

সর্বশেষ বিভাগীয় কমিশনারের মধ্যস্ততায় গত ২ জানুয়ারী বিষয়টি নিয়ে বরিশাল নগরীর সার্কিট হাউসে সমঝোতা বৈঠক হওয়ার কথা ছিলো। সেখানে ঝালকাঠি ছাড়া অন্য কোন সমিতির নেতৃবৃন্দ আসেনি। এজন্য ৩ জানুয়ারী সকাল থেকে বরিশাল নগরীর রূপাতলী বাস টার্মিনাল থেকে ঝালকাঠি, খুলনা সহ পশ্চিমাঞ্চলের ১০টি রুটে বাস চলাচল বন্ধ করে দেয় ঝালকাঠি সমিতি। এমনকি ঝালকাঠি সমিতির বাসও বরিশালে প্রেবেশ করেনি।

তবে ঝালকাঠি সমিতি রূপাতলী বাস টার্মিনাল থেকে প্রায় ৬ কিলোমিটার দুরে অস্থায়ী বাস টার্মিনাল স্থাপন করে সেখান থেকেই বাস চলাচল করে আসছিলো। এতে গত ১৯ দিন যাত্রীদের সিমাহিন দুর্ভোগ পোহাতে হয়েছে। যাত্রীদের ভোগান্তির কথা বিবেচনা করেই আগামী ১০ ফেব্রুয়ারী পর্যন্ত বাস চলাচল স্বাভাবিক করেছেন বিভাগীয় কমিশনার।