জগন্নাথপুরে বিশাল মটর সাইকেল বহর নিয়ে দেশে ফিরলেন নৌকার মনোনয়ন প্রত্যাশী রিয়াজ আলম আনছার

জি এম নিউজ জি এম নিউজ

বাংলার প্রতিচ্ছবি

প্রকাশিত: ৬:৩৫ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ৯, ২০২১ | আপডেট: ৬:৩৫:অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ৯, ২০২১

জগন্নাথপুর (সুনামগঞ্জ) প্রতিনিধি:

সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুর উপজেলার পাটলি ইউনিয়ন নৌকা মনোনয় প্রত্যাশী মদন মোহন কলেজের সাবেক ছাত্রনেতা, যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগ নেতা, বিশিষ্ট শিক্ষানুরাগী রিয়াজ আলম আনছার। দেশে এসে জনসাধারনের ফুলের শুভেচ্ছায় শিক্ত হলেন।
শনিবার ( ৯ জানুয়ারী) দুপুরে সিলেটের কোয়ারেন্টিন শেষে নির্বাচনী এলাকায় ও জন্মস্থানে বিশাল মটর সাইকেল বহর নিয়ে আসেন। এ সময় তিনি বর্তমান সরকারের উন্নয়নের ধারাবাহিকতা রক্ষায় কাজ করার অঙ্গিকার ব্যক্ত করে সাংবাদিকদের বলেন, নৌকার উন্নয়নের ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে এবং মানুষের সেবা করার সুযোগ করে দিতে তিনি মাঠে নেমেছেন।

 

উন্নয়ন মানেই নৌকা। মমতাময়ী নেত্রী শেখ হাসিনার নৌকা প্রতীকে মনোনয়ন পেলে উন্নয়নের অগ্রযাত্রাকে অব্যাহত রাখার জন্য তিনি কাজ করে যাবেন।
আধুনিক পাটলি ইউনিয়ন গঠন ও উন্নয়নের ধারা বজায় রাখতে তিনি প্রবাসে থেকে দেশের মানুষের সেবা করার জন্য এসেছেন। উন্নয়নের ধারাবাহিকতা রক্ষায় চেয়ারম্যান হতে চান তিনি। ইউনিয়নের অসমাপ্ত কাজ সম্পন্ন ও নাগরিক সুবিধা বৃদ্ধি করতে নৌকা প্রতীকে চেয়ারম্যান হিসেবে মনোনয়ন চাই। ছাত্রজীবন থেকে বিগত সময়ে আমি পাশে ছিলাম। এবং তাদের উন্নয়নে কাজ করার জন্য জোর চেষ্টা চালিয়েছিলাম। আশা রাখছি জনগণ উন্নয়নের ধারাবাহিকতা রক্ষায় আমাকে নৌকা প্রতীক দান করবেন।

নৌকা মার্কার প্রার্থী হতে আপনাদের সামনে হাজির হয়েছি। যে নৌকায় ভোট দিয়ে আপনারা এদেশের স্বাধীনতা পেয়েছেন, যে নৌকায় ভোট দিয়ে বাংলা ভাষায় কথা বলার অধিকার পেয়েছেন, যে নৌকায় ভোট দিয়ে দারিদ্র্যমুক্ত ক্ষুধামুক্ত বাংলাদেশ আমাদের জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা গড়ে তুলেছেন। বাংলাদেশ এখন উন্নয়নের রোল মডেল। বাংলাদেশকে কেউ অবহেলা করতে পারে না। আমরা প্রবাসে থেকেও দেশ, মাটির মানুষের জন্য কাজ করতে দেশে আসছি। আমি আশাবাদি মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা আমাকে নৌকা প্রতিক দিয়ে পাটলি ইউনিয়নকে ডিজিটাল ইউনিয়ন করার সুযোগ দান করবেন। এ সময় ইউনিয়নের সর্বস্থলের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।##

Print Friendly, PDF & Email