৬ মাসে ২০০ জনকে নগ্ন ছবি পাঠানোর অভিযোগ বৃদ্ধের বিরুদ্ধে!

প্রকাশিত: ৮:৩৮ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ৮, ২০২০ | আপডেট: ৮:৪২:অপরাহ্ণ, নভেম্বর ৮, ২০২০

একের পর এক ই’চ্ছেমতো ফোন নম্বর ডায়াল করে ফোন। ফো’ন বাজলেই তা রেখে দেওয়া। পর’বর্তীতে সেই নম্বরে একের পর এক নগ্ন ছবি পাঠা’নো। এভাবে প্রায় ২০০ জনকে ন’গ্ন ছ’বি পাঠানোর অভিযোগ উঠেছে ক’র্ণাটকের এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে। ওই ২০০ জ’নের মধ্যে আবার ১২০ জ’নই মহিলা। শুনতে অবাক লা’গলেও এমনই কুকী’র্তি করে আ’পাতত হাজতে অ’ভিযুক্ত ব্যক্তি।

জানা যা’য়, ওই ব্যক্তির নাম ও রামকৃষ্ণ। ৫৪ ব’ছর বয়সী রামকৃষ্ণ ভার’তের কর্ণাটকের চি’ত্রদুর্গের চাল্লাকেরের বাসিন্দা। দী’র্ঘ ছয় মাস ধরেই এই কা’জ করছিল সে। স্থা’নীয় অনেককেই এ’ভাবে ফোনে নগ্ন ছবি পা’ঠিয়ে হেনস্তা করত। শেষ পর্যন্ত স্থা’নীয়দের অভিযোগের ভি’ত্তিতেই তদন্তে নামে পুলিশ। গত শু’ক্রবার রাতে গ্রেপ্তার করে অভি’যুক্তকে। জেরায় নিজের দোষ স্বী’কারও করে নিয়েছে রাম’কৃষ্ণ।

পুলিশ জা’নিয়েছে, একটি নম্বর থেকে একা’ধিক নগ্ন ছবি পাওয়ার বেশ কয়ে’কটি অভিযোগ জমা পড়ে স্থা’য় থানায়। এরপরই নম্বরটি কার জানতে তদন্ত শুরু হয়। কিন্তু ফো’নটি সুইচড অফ থাকায় বেশ কি’ছুদিন তল্লাশি করেও রামকৃষ্ণে’র হদিস পায়নি পুলিশ। শেষে গত শুক্রবার ফোনটি অন করতে’ই পুলিশ তার লোকেশন হাতে পে’য়ে যায়। এরপরই গ্রেফ’তার করা হয় অভিযু’ক্তকে।
পরবর্তী’তে জেরায় ওই ব্যক্তি পুরো ঘটনা’টি জানান। বলেন, ইচ্ছেমতো ন’ম্বর ডায়াল করতেন। ফো’ন রিং হলেই রেখে দিতেন। তারপর সেই নম্বরে একের পর এক ন’গ্ন ছবি পাঠাতেন। চাল্লাকে’রেরই অন্তত ৫০ জন মহিলাকে এভা’বে নগ্ন ছবি পাঠিয়েছিলেন। লজ্জার খাতিরে প্রথমে অনেকেই অ’ভিযোগ জানাননি। তবে ওই ব্য’ক্তির গ্রেফতারের খবর পেয়ে অ’নেকেই আবার সাহস করে এগিয়ে এসে অভি’যোগ দায়ের করেছেন।