চলে গেলেন ভারতের প্রথম অস্কারজয়ী ভানু আথাইয়া

প্রকাশিত: ২:১৫ পূর্বাহ্ণ, অক্টোবর ১৬, ২০২০ | আপডেট: ২:১৫:পূর্বাহ্ণ, অক্টোবর ১৬, ২০২০

ভা’রতের বিনোদন দুনিয়ায় আরও এক নক্ষত্রের পতন ঘটল। মা’রা গেলেন ভারতের প্রথম অ’স্কারজয়ী ভানু আ’থাইয়া। দী’র্ঘদিন ধরে তিনি অসুস্থ ছিলেন। মৃ’ত্য়ুকালে তার বয়স হ’য়েছিল ৯১। মায়ের মৃ’ত্য়ুর খবর জানিয়েছেন ভা’নু আথাইয়ার কন্য়া।

ভানু আ’থাইয়ার কন্য়া রাধিকা গু’প্ত জানান, আজ (বৃহস্পরতিবার) স’কালে তার মৃ’ত্য়ু হয়। ৮ বছর আ’গে তার মস্তিষ্কে টি’উমার ধরা প’ড়েছিল। গত ৩ বছর ধরে তিনি শ’য্য়াশায়ী ছিলেন। দক্ষিণ মু’ম্বইয়ের চন্দনওয়াড়ি শ্মশানে তার শেষকৃত্য় স’ম্পন্ন হয়েছে।

সিআইডি, প্য়া’য়াসা, কাগজ কে ফুল, ওয়াক্ত, আরজু, আ’ম্রপালি, সুরজ, অনিতা, মিলন, রাত অউর দিন, শিকা’র, গাইড, তিসরি মঞ্জিল, মেরা সায়া, ইন্তেকাম, অভিনেত্রী, জনি মেরা নাম, গীতা মেরা নাম, আবদুল্লা, কর্জ, এক দুজে কে লিয়ে, রাজিয়া সুলতান, নিকাহ, অগ্নিপথ (১৯৯০), আজুবা, ১৯৪২ অ্য়া লাভস্টোরি-এর মতো ছ’বিতে পোশাক ডিজাইনের কাজ ক’রেছেন ভানু।

ভানু আথাইয়ার জন্ম হ’য়েছিল কোলাপুরে। ১৯৫৬ সা’লে গুরু দত্তের বিখ্যাত ছবি সি.আই.ডি র মাধ্যমে ইন্ডা’স্ট্রিতে পোশাক ডি’জাইনার হিসেবে প্রবেশ করেন। এরপর ১৯৮২ সা’লে ‘গান্ধী’ ছবিতে পোশাকের দায়িত্বভার কাঁধে তুলে ন’জির গড়েন ভানু। ওই ছবির দৌলতেই সেরা কস্টিউম ডিজাইন বিভাগে প্রথম ভারতীয় হিসেবে অস্কার জেতেন তিনি।

উল্লেখ্য, ২০১২ সা’লে তিনি একাডেমি অফ মোশন পি’কচার্সকে ফিরিয়ে দিয়েছিলেন তার অ’স্কারের স্মারক, কারণ আশঙ্কা করেছিলেন এখানে হয়তো য’থাযথ রক্ষণাবেক্ষন হবে না। নিজের ক্যা’রিয়ারে শতাধিক ছবিতে কাজ করেছেন ভা’নু। তার মধ্যে গু’লজারের ছবি লেকিন (১৯৯০ ) এবং আ’শুতোষ গোয়াড়েকরের লাগান (২০০১) ছবির সৌ’জন্যে দুইবার ভূষিত হ’য়েছিলেন জাতীয় পু’রস্কারে। কিংবদন্তির মৃত্যুতে শো’কস্তব্ধ ভারতের চলচ্চিত্র মহল এবং ফ্যা’শন জগৎ।