৮ বছরের শিশুকে ধর্ষণের পর হত্যার জেরে পাকিস্তানে দাঙ্গা

জি এম নিউজ জি এম নিউজ

বাংলার প্রতিচ্ছবি

প্রকাশিত: ১১:২২ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ১০, ২০১৮ | আপডেট: ১১:২২:অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ১০, ২০১৮

পাকিস্তানে কাসুর শহরে আট বছরের এক শিশুকে ধর্ষণের পর হত্যার ঘটনায় খুন করা হয়েছে দুই ব্যক্তিকে। এরপরেও পুলিশের কোনো কার্যকর পদক্ষেপ না দেখে হিংসাত্মক প্রতিবাদ শুরু করেছে শহরটির বাসিন্দারা।

জানা যায়, গত ৪ জানুয়ারি আট বছর বয়সী একটি মেয়ে পড়া শেশে বাড়ি ফেরার পথে নিখোঁজ হলে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে ভারত সীমান্তবর্তী পাঞ্জাব প্রদেশের কাসুরে। সেসময় ধর্মীয় কাজে বাইরে থাকা শিশুটির বাবা-মা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়া একটি সিসিটিভি ফুটেজে একজন অপরিচিত মানুষের সঙ্গে তার মেয়েকে দেখতে পান।

মঙ্গলবার এক ময়লার স্তুপ থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করে এক পুলিশ সদস্য। পুলিশের ধারণা, চার বা পাঁচদিন আগে তাকে খুন করা হয়েছে। মরদেহ উদ্ধার করে পরীক্ষার জন্য পুলিশ হেডকোয়ার্টারের হাসপাতালে পাঠানো হয়।

এই ঘটনার জেরে লাঠিসোটা এবং পাথর নিয়ে ডেপুটি কমিশনার অফিসের সামনে প্রতিবাদে জড়ো হয় শহরের বাসিন্দারা। অভিযোগ, ওই প্রতিবাদ সমাবেশে গুলি ছোঁড়ে পুলিশ। সংঘর্ষে আহত হয় অনেকে।

বুধবার পাকিস্তানে ফিরে ওই শিশুর বাবা সাংবাদিকদের জানান, যথার্থ বিচার না পেলে তিনি তার মেয়েকে কবরস্থ করবেন না। পুলিশের বিরুদ্ধে রাজনৈতিক নেতাদের লেজুড়বৃত্তির অভিযোগ আনেন তিনি।

এই ঘটনার প্রেক্ষিতে শান্তির আহ্বান জানিয়েছেন পাঞ্জাব প্রদেশের আইনমন্ত্রী রানা সানাউল্লাহ খান। তাকে উদ্ধৃত করে ডন পত্রিকা জানায়, ‘বিষয়টি তার নজরে রয়েছে।’

সূত্র: হিন্দুস্তান টাইমস