কুয়াকাটায় আইনশৃঙ্খলা বিষয়ক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত ॥

প্রকাশিত: ২:০৫ পূর্বাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২৪, ২০২০ | আপডেট: ২:০৫:পূর্বাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২৪, ২০২০

রাসেল কবির মুরাদ , কলাপাড়া(পটুয়াখালী)প্রতিনিধি ঃ কুয়াকাটায় হোটেল-মোটেল, কর্টেজ, রিসোর্ট মালিক ও তাদের প্রতিনিধিদের নিয়ে আইনশৃঙ্খলা বিষয়ক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। বুধবার শেষ বিকেলে পর্যটন করপেরেশনের যুবপান্থ নিবাসের হল রুমে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। মতবিনিময় সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন,কুয়াকাটা পৌর মেয়র আ: বারেক মোল্লা, কলাপাড়া সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার মো: আহম্মেদ আলী, কুয়াকাটা ট্যুরিষ্ট পুলিশ জোনের ইনেসপেক্টর মো: মিজানুর রহমান প্রমূখ।

মহিপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো: মনিরুজ্জামানের সভাপতিত্বে সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন পটুয়াখালী জেলা পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মইনুল হাসান । প্রধান অতিথির বক্তব্যে কুয়াকাটায় ধারাবাহিকভাবে খুন, আত্মহত্যাসহ নানা অপরাধ প্রবনতা রোধে হোটেল কর্তৃপক্ষকে আরো সচেতন হতে হবে। নিরাপত্তার স্বার্থে জেলা পুলিশের নির্দেশনা মোতাবেক হোটেলে অবস্থানকারকারী পর্যটকদের ১৮টি তথ্য পূরণ করলে অপরাধীরা এমন অপরাধ করতে সাহস পেতো না। তিনি বলেন, আগত পর্যটক এবং রাষ্টের নিরাপত্তার স্বার্থে হোটেলে সিসি ক্যামেরা স্থাপণ করতে হবে। অধিকাংশ হোটেলে পুলিশের দেয়া এসব নিয়ম না মেনে হোটেল পরিচালনা করার কারণে নানা অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটছে। তিনি বলেন, যেসব আবাসিক হোটেল নিয়ম মেনে হোটেল পরিচালনা করবেন না তাদের বিরুদ্ধে আইনানূগ ব্যবস্থা নেয়া হবে। অসামাজিক কার্যকলাপের সাথে জড়িত হোটেলগুলো ইতিমধ্যে চিহ্নিত করা হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেয়ার কথা জানান তিনি।

সভায় উপস্থিত হোটেল মোটেল মালিক ও তাদের প্রতিনিধি,সুধীজন ও সাংবাদিকসহ শতাধিক মানুষ অংশগ্রহন করেন। এতে মুক্ত আলোচনায় অংশ গ্রহনকারী হোটেল-মোটেল ওনার্স এসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক মোতালেব শরীফ, কুয়াকাটা প্রেসক্লাবের সভাপতি নাসির উদ্দিন বিপ্লব, কুয়াকাটা গ্র্যান্ড হোটেলের প্রশাসনিক কর্মকর্তা ফয়সাল আহম্মেদ, আবাসিক হোটেল কুয়াকাটা ইন’র ব্যপস্থাপনা পরিচালক ওয়াহিদুজ্জামান সোহেল, আল হেরা হোটেলের মালিক মাওলানা মো: মাঈনুল ইসলাম মান্নান, সাগর হোটেলের সত্বাধিকারী মান্নান চৌধুরী, শিকাদার রির্সোট এন্ড ভিলা’র প্রশাসনিক কর্মকর্তা সাহিন আলম প্রমুখ। হোটেল পরিচালনায় পুলিশের সহযোগিতা চেয়ে মুক্ত আলোচনায় বক্তারা আবাসিক হোটেলগুলোতে অনৈতিক ও অসামাজিক কার্যক্রম বন্ধের দাবী জানান।