ঝালকাঠির বিষখালীর চরে ২৫টি পরিবারের দায়িত্ব পালনে বিওয়াইএস ও দুরন্ত ফাউন্ডেশন

প্রকাশিত: ৯:১৭ অপরাহ্ণ, আগস্ট ২৯, ২০২০ | আপডেট: ৯:১৭:অপরাহ্ণ, আগস্ট ২৯, ২০২০

‘সম্পর্কে ভালো থাকুক দেশ’ প্রকল্পের মাধ্যমে ঝালকাঠি সদর উপজেলার বিশখালি নদী চরের জল ঘেরা গ্রাম আতাকাঠি চরের ২৫টি পরিবারের দায়িত্ব নিয়েছে বেসরকারি সংস্থা বরিশাল ইয়ুথ সোসাইটি এবং দুরন্ত ফাউন্ডেশন।
প্রকল্পের আওতায় করোনায় কর্মহীন হয়ে পড়া ও ঘূর্ণিঝড় আম্ফানে ক্ষতিগ্রস্ত আতাকাঠি চরের এসব পরিবারকে স্বাবলম্বী না হওয়া পর্যন্ত ৮ ধরনের সুবিধা দিয়ে যাবে সংগঠন দুটি। করোনা ও আম্পানে ক্ষতিগ্রস্ত এসব পরিবারগুলোকে তৃতীয় মাসেও খাদ্য, পুষ্টি বীজ, নারীদের স্যানিটারি প্যাডসহ দেয়া হয়েছে নানা সহযোগিতা। শনিবার (২৯ আগস্ট) দুপুরে গ্রামে গিয়ে সংগঠনের সদস্যরা এসব সামগ্রী অসহায় পরিবারগুলোর হাতে তুলে দেয়।
চরের ২৫টি অসচ্ছল পরিবারকে গত জুন মাসে প্রথম দফায় সহযোগিতা শুরু করে তারা। গত ২৩ জুলাই বৃহস্পতিবার দ্বিতীয় মাসে পরিবার প্রতি দুই হাজার টাকার মাসিক বাজার,শিশু খাদ্য, ঈদের জামা এবং প্রতি পরিবারকে পুষ্টি বাগানের জন্য দেয়া হয়েছে উন্নত বীজ। মহিলাদের স্বাস্থ্য সেবায় দেয়া হয় স্যানিটারি প্যাড।
দুরন্ত ফাউন্ডেশনের সভাপতি তাসিন মৃধা অনিক জানান, অসচ্ছল ২৫টি পরিবারকে সাহায্য করবে আমাদের স্পন্সর স্বচ্ছল ২৫টি পরিবার। যার মাধ্যমে দুই পরিবারের মাঝে তৈরি হবে দৃঢ় একটি সম্পর্ক। এসব সহযোগিতার পাশাপাশি চরের মানুষের কারিগরি শিক্ষা প্রদানের মাধ্যমে তাদের দক্ষ জনগোষ্ঠিতে রূপান্তর করা হবে। বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত চরের কৃষকদের প্রদান করা হবে বীজ এবং ২৫টি পরিবারের মাঝে হাস-মুরগি প্রদান করার মাধ্যমে তাদের স্বচ্ছল করার চেষ্টা অব্যাহত থাকবে।