ঝালকাঠিতে এক নারী পাচারকারী গ্রেফতার, ভিকটিম ২ স্কুল ছাত্রী উদ্ধার

প্রকাশিত: ৯:১১ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ২২, ২০১৯ | আপডেট: ৯:১১:অপরাহ্ণ, অক্টোবর ২২, ২০১৯

ঝালকাঠির কাঠালিয়ায় দুই স্কুল ছাত্রীকে ভারতে পাচারের চেষ্টাকালে সাথী বেগম(২৫) নামে এক নারী পাচারকারীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গ্রেফতারকৃত পাচারকারী সাথী বেগম উপজেলার দণি চেচঁরী গ্রামের সেলিম হাওলাদারের মেয়ে। এ সময় ভিকডিটম মাহাফুজা আক্তার ও কুসুম আক্তার নামের দুই স্কুল ছাত্রীকেও উদ্ধার করা হয়। ভিকটিম মাহাফুজা আক্তার উপজেলার চেঁচরী রামপুর এম এল মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সপ্তম শ্রেণির ছাত্রী ও দণি চেচঁরী গ্রামের আনিসুর রহমানের মেয়ে এবং কুসুম আক্তার একই বিদ্যালয়ের ৬ষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রী ও একই এলাকার আঃ জব্বার হাওলাদারের মেয়ে। এ ঘটনায় মঙ্গলবার (২২ অক্টোবর) সকালে দণি চেচঁরি গ্রামের আঃ মান্নান হাওলাদার বাদি হয়ে সাথী বেগম ও রাহুল নামে দুইজনের নামলে­খ সহ অজ্ঞাতনামা ৩/৪ জন আসমি করে মানব পাচার আইনে কাঠালিয়া থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন।
কাঠালিয়া থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্র্তা মো. এনামুল হক জানান, পাচারকারী সাথী বেগম ও রাহুল সহ একটি সঙ্গবদ্ধ চক্র দুই স্কুল ছাত্রীকে পাচারের চেষ্টাকালে সাথী বেগমকে গ্রেফতার করা হয় এবং ভিকটিম দুই ছাত্রীকেও উদ্ধার করেত সম হই। এ ঘটনায় মানব পাচার আইনে একটি মামলা হয়েছে। উৃদ্ধারকৃত দুই ছাত্রীকে মঙ্গলবার বিকেলে আদালতে নেয়া হলে আদালত ৬৪ ধারায় তাদের জবানবন্দি রেকর্ড করে এবং গ্রেফতারকৃত সাথী বেগমকে দুই দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করে।