বিদ্যুৎ লাইন মাটির নিচে নেওয়ার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর

জি এম নিউজ জি এম নিউজ

বাংলার প্রতিচ্ছবি

প্রকাশিত: ৯:৪৭ পূর্বাহ্ণ, আগস্ট ২১, ২০১৯ | আপডেট: ৯:৪৭:পূর্বাহ্ণ, আগস্ট ২১, ২০১৯

দেশের সব বিদ্যুৎ লাইন পর্যায়ক্রমে আন্ডারগ্রাউন্ডে বা মাটির নিচ দিয়ে নিয়ে যাওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। মঙ্গলবার (২০ আগস্ট) জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) সভায় তিনি এ নির্দেশ দেন। সভা শেষে এনইসি সম্মেলন কক্ষে পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান এ তথ্য জানান।

সভা শেষে গণমাধ্যমকর্মীদের সামনে একনেকে দেয়া প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনাগুলো তুলে ধরেন পরিকল্পনামন্ত্রী। বিদ্যুতের বিষয়ে নিজের মন্তব্য তুলে তিনি বলেন, ‘ইতোমধ্যে আম’রা কাজ শুরু করেছি। এটা আগেরই নির্দেশনা ছিল। প্রধানমন্ত্রী আজকে (মঙ্গলবার) আবার পুনরায় বলেছেন। মানে সিরিয়াসলি দেখতে বলেছেন।’

গাছ রোপণের বিষয়টিও প্রকল্পে রাখতে বলেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এ বিষয়ে প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য তুলে ধরে পরিকল্পনামন্ত্রী বলেন, ‘রাস্তার দু’পাশে বাঁশ, গাছ যা পারেন রোপণ করেন। আপনারা যখন প্রকল্প বানাবেন, প্রকল্পের মধ্যেই একটা আইটেম রাখবেন বৃক্ষরোপণের। বাঁধের প্রকল্পেও বৃক্ষরোপণের ব্যবস্থা রাখতে বলেছেন। গাছ না কাটতেও বলেছেন প্রধানমন্ত্রী।’

দেশে আর কোনো স্লুইচগেট না করার নির্দেশ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। এ বিষয়ে পরিকল্পনামন্ত্রী বলেন, ‘স্লুইচগেট স’ম্পর্কে প্রধানমন্ত্রী বির’ক্ত প্রকাশ করেছেন। অধিকাংশ স্লুইচগেট কাজ করে না। গেটগুলো নামলে ওঠে না, ওঠলে নামে না। এগুলো না করে বিকল্প কী’ করা যায় -সেটা দেখতে বলেছেন। ছোট নদীগুলোর নাব্যতা বাড়ানোর কথা বলেছেন প্রধানমন্ত্রী। তাহলে পানি জমবে না।’

এম এ মান্নান বলেন, ‘বাংলাদেশে সবচেয়ে বড় স্লুইচগেট কাপ্তাই প্রকল্পে। যদিও এ ধরনের প্রকল্প আর করব না। তবে এ ধরনের প্রকল্প করতে হলে বিচার-বিবেচনা করে করতে হবে। পথেঘাটে সব জায়গায় স্লুইচগেট করা যাবে না। আমি নিজে এর ভুক্তভোগী। আমা’র এলাকায় দুই-তিনটা স্লুইচগেট আছে। স্টিলের পাত লাগায়, তাতে ম’রিচা ধরে, তারপরই শেষ।’
খুলনার লবণাক্ত এলাকায় ভবন নির্মাণের সময় বৃষ্টির পানি ধরে রাখার ব্যবস্থা রাখতে এবং সবধরনের সরকারি ভবনে বাচ্চাদের জন্য ডে-কেয়ার রাখতে প্রধানমন্ত্রী নির্দেশ দিয়েছেন বলেও জানান তিনি।