সাংবাদিকদের পেশাগত স্বার্থ রক্ষায় ঐক্যবদ্ধ হওয়া উচিত : কাজী মিরাজ

প্রকাশিত: ৭:২২ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ৮, ২০১৯ | আপডেট: ৭:২২:অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ৮, ২০১৯

বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক ফোরাম কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি কাজী মিরাজ মাহমুদ বলেছেন, নিজেদের প্রয়োজনে পেশাগত স্বার্থ রক্ষায় সাংবাদিকদের ঐক্যবদ্ধ হওয়া উচিত। নিজেদের মধ্যে অনৈক্যের কারনে প্রায়শই সাংবাদিকরা নির্যাতনের শিকার হচ্ছেন। তাই ঐক্যবদ্ধতার বিকল্প নেই। শুক্রবার ইকোপার্কে বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক ফোরাম ঝালকাঠি জেলা শাখা আয়োজিত সাংবাদিকদের গেট টুগেদার অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেছেন। বিএমএসএফ কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক আহমেদ আবু জাফর অনুষ্ঠানে উদ্বোধক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন। তিনি তার বক্তব্যে বলেন, সাংবাদিকরা আজ বিএমএসএফ’র ১৪ দফা দাবি আদায়ের জন্য সংগঠনের পতাকাতলে ঐক্যবদ্ধ। বিএমএসএফ সাংবাদিকদের রুটি-রুজি ও নিরাপত্তা রক্ষা আন্দোলনের মাইলফলক। বিএমএসএফ সাংবাদিকদের মাঝে জাতীয় ঐক্য প্রতিষ্ঠার আন্দোলন ফলপ্রসূ করতে সদস্যদেরকে আরো সক্রিয় হওয়ার আহŸান জানান।
বিএমএসএফ ঝালকাঠি জেলা কমিটির সভাপতি আজমীর হোসেন তালুকদারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় সম্মানিত অতিথি ছিলেন ঝালকাঠি জেলা আওয়ামি লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট খান সাইফুল্লাহ পনির।
জেলা কমিটির সাধারণ সম্পাদক রিয়াজুল ইসলাম বাচ্চুর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত সভায় অতিথি ছিলেন দেশবাংলা ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান, কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক এসএম রেজাউল করিম, আইটি সম্পাদক গোলাম মাওলা শান্ত, জেলা কমিটির সহ-সভাপতি সত্যবান সেন গুপ্ত গোপাল, যুগ্ম-সম্পাদক মিজানুর রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক আতিকুর রহমান, দফতর সম্পাদক ইব্রাহিম খান শাকিল, কোষাধ্যক্ষ গিয়াস উদ্দিন, ক্রীড়া সম্পাদক বাবুল মিনা, রাজাপুর উপজেলা কমিটির সাধারণ সম্পাদক সাইদুল ইসলাম, কাঠালিয়া কমিটির সভাপতি ফারুক খান, সাধারণ সম্পাদক আব্দুল হালিম, নলছিটি কমিটির সহ-সভাপতি সাইদুল কবির রানা প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।
দিনব্যাপী অনুষ্ঠানে একুশে কুইজ প্রতিযোগিতা, র‌্যাফেল ড্র, পুরুষ ও মহিলাদের ঝুড়িতে বল নিক্ষেপ খেলা অনুষ্ঠিত হয়। আনন্দঘন এ অনুষ্ঠান শেষে বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করা হয়। অনুষ্ঠানে বিএমএসএফ কেন্দ্রীয় সাধারন সম্পাদক পুননির্বাচিত হওয়ায় আহমেদ আবু জাফর ও জেলা সভাপতি আজমীর হোসেন তালুকদারকে সম্প্রতি কেন্দ্রীয় কমিটির নির্বাহী সদস্য মনোনীত করায় তাঁদের ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানানো হয়।