রনির আগমনে হঠাৎ ঘাট থেকে উধাও স্পিডবোট, ফেরি ও নৌকা!

জি এম নিউজ জি এম নিউজ

বাংলার প্রতিচ্ছবি

প্রকাশিত: ১১:৩৩ পূর্বাহ্ণ, ডিসেম্বর ২, ২০১৮ | আপডেট: ১১:৩৩:পূর্বাহ্ণ, ডিসেম্বর ২, ২০১৮

আগামী ৩০ সে ডিসেম্বর একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন।একাদশ জাতীয় নির্বাচনকে সামনে রেখে দেশের রাজনীতিক দল গুলো নিজেদের লক্ষে প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছে । ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগ তাদের চুড়ান্ত প্রার্থীদের মনোনয়নের দিয়েছে।

এদিকে আওয়ামী লীগ থেকে অনেকে মনোনয়ন চিঠি না পেয়ে বিভিন্ন দলে যোগ দিচ্ছে তার মধ্যে অন্যতম আওয়ামী লীগের সাবেক সংসদ সদস্য গোলাম মাওলা রনি।

জিয়ারত করার উদ্দেশ্যে মির্জাগঞ্জের সুফিসাধক ইয়ার উদ্দিন খলিফার (র.) মাজারে যাচ্ছিলেন সদ্য বিএনপিতে যোগ দেওয়া গোলাম মওলা রনি। কিন্তু মাঝ পথে বিপাকে পড়তে হয় পায়রাকুঞ্জ ফেরিঘাট পৌঁছলে। অজ্ঞাত কারণে নদী পার হওয়ার জন্য ফেরি, ট্রলার, স্পিডবোট উধাও হয়ে যায়।

জানা যায়, শুক্রবার (৩০ নভেম্বর) ইয়ার উদ্দিন খলিফার (র.) মাজার জিয়ারত করার উদ্দেশ্যে রনি তার ব্যক্তিগত গাড়িতে রওনা দিয়ে পায়রাকুঞ্জ ফেরিঘাট পৌঁছান বেলা ১১টায়। এ সময় অজ্ঞাত কারণে নদী পার হওয়ার জন্য ফেরি, ট্রলার, স্পিডবোট উধাও হয়ে যায়। তাই নদী পার হতে না পেরে প্রায় ৩ ঘণ্টা অপেক্ষার পর পায়রাকুঞ্জ থেকেই বিদায় নেন তিনি।

এ ব্যাপারে রনি বলেন, মাজার জিয়ারত করতে গিয়ে পায়রা নদীর পূর্ব পার থেকেই ফিরে আসতে হয়েছে। কে বা কার নির্দেশে জানি না ওইদিন ওই নির্দিষ্ট সময় সব ধরনের নৌযান ঘাট থেকে সরিয়ে নেয়া হয়।

মির্জাগঞ্জ থানার ওসি মো. মাসুমুর রহমান বিশ্বাস বলেন, ইয়ার উদ্দিন খলিফার (র.) মাজার জিয়ারত করতে প্রতি শুক্রবার অনেক ভিআইপি মেহমান আসেন। ওইদিন রনি সাহেবের আসার কথা আমি জানি না। ফেরি ট্রলার কি কারণে ওই সময়ে বন্ধ ছিল আমার জানা নেই।

পায়রাকুঞ্জ ফেরির ইজারাদার মো. মিঠু হাওলাদার জানান, ফেরিতে একটি ট্রাক আটকে যাওয়ায় কিছু সময় ফেরি বন্ধ ছিল। উল্লেখ্য, সদ্য বিএনপিতে যোগ দিয়ে পটুয়াখালী-৩ (দশমিনা-গলাচিপা) আসনে বিএনপি থেকে মনোনয়ন পেয়েছেন আওয়ামী লীগের সাবেক সংসদ সদস্য গোলাম মওলা রনি।