খাদ্যের অধিকার ও কৃষি জমি সুরক্ষা আইনের দাবিতে বরিশালে মানববন্ধন

জি এম নিউজ জি এম নিউজ

বাংলার প্রতিচ্ছবি

প্রকাশিত: ১০:২৪ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ১৮, ২০১৮ | আপডেট: ১০:২৪:অপরাহ্ণ, অক্টোবর ১৮, ২০১৮

বরিশাল :

খাদ্যের অধিকার ও কৃষি জমি সুরক্ষা আইনের দাবিতে বরিশালে মানববন্ধন কর্মসূচী পালন করা হয়েছে। খাদ্য নিরাপত্তা নেটওয়ার্ক (খানি), ল্যান্ড রাইটস নাউ, ব্রেড ফর দ্যা ওয়াল্ড, ম্যাপ এবং প্রান্তজনের আয়োজনে মঙ্গলবার (১৬ অক্টোবর) বেলা ১১ টায় বরিশাল নগরের অশ্বিনী কুমার হলের সামনে এ কর্মসূচী পালন করা হয়। মানব বন্ধনে বক্তব্য রাখেন বরিশাল মানবাধিকার জোটের সভাপতি ডাঃ সৈয়দ হাবিবুর রহমান, আই সি ডি এর নির্বাহী পরিচালক আনোয়ার জাহিদ, ম্যাপ’র নির্বাহী পরিচালক শুভংকর চক্রবর্তী, ক্যাব এর সম্পাদক রনজিৎ দত্ত, জেলা কৃষকলীগ এর সহ সভাপতি মজিবর রহমান খান, রান এর নির্বাহী পরিচালক রফিকুল আলম, জেলা কৃষক লীগ যুগ্ম সম্পাদক গিয়াস উদ্দিন আহম্মেদ, সি ডি এস এর নির্বাহী পরিচালক জাহানারা বেগম সপ্না, এনভিএস’র নির্বাহী পরিচালক শওকত আলী বাদল, প্রান্তজন’র ক্যাম্পেইন সমন্বয়কারী সাইফ মাহমুদ, রবিউল ইসলাম প্রমূখ। এসময় বক্তরা বলেন, দেশে কৃষি জমি সুরক্ষা ও খাদ্য অধিকার আইন প্রণয়নের জন্য প্রধানমন্ত্রী প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন। তাই অবিলম্বে এই আইন পাশ করে দেশের সকল মানুষের খাদ্য অধিকার নিশ্চিত করতে হবে। বক্তারা আরো বলেন, খাদ্য প্রত্যেক মানুষের প্রধানতম অধিকার। মানুষের অস্তিত্ব টিকিয়ে রাখার পূর্বশর্তই হচ্ছে তার খাদ্যের অধিকার পূরণ করা। বক্তারা বলেন, খাদ্য নিরাপত্তার সাথে কৃষিজমির ওপর কৃষকদের অধিকার খুব নিবিড়ভাবে সম্পৃক্ত। প্রান্তিক ও ক্ষুদ্র কৃষকরা যারা খাদ্য চাহিদার সিংহভাগ যোগান দিয়ে থাকে, কিন্তু তাদের বেশির ভাগেরই জমির মালিকানা নেই। সারা বিশ্বে শতকরা ৪০ ভাগ জমি প্রকট স্থায়িত্ত্ব সংকটে রয়েছে। এসব জমির বেশিরভাগই বৃহৎ শিল্প-কারখানা অথবা বিভিন্ন রকম অকৃষিজ কাজে ব্যবহৃত হওয়ার আশঙ্কায় আছে। মাত্রাতিরিক্ত জনসংখ্যার চাপ, ক্রমবর্ধমান ও অপরিকল্পিত নগরায়ন, রাষ্ট্রীয় বৃহৎ প্রকল্প, শিল্পের বহুমুখী প্রসার, বন্যা নিয়ন্ত্রনের জন্য বাধ নির্মাণ, রাস্তা-ঘাট নির্মাণ সহ নানাবিধ কারণে আমাদের দেশের অবস্থা আরও শোচনীয়। এমতাবস্থায়, একটি টেকসই কৃষি ব্যবস্থা এবং কৃষিজমি সুরক্ষা ছাড়া আমাদের খাদ্য নিরাপত্তা নিশ্চিত করার কেবল কল্পনাই থেকে যাবে। সরকার কৃষিজমি রক্ষার জন্য ২০১৫ সালে কৃষিজমি সুরক্ষা ও ভুমি ব্যবহার আইনের খসড়া প্রণয়ন করছে। কিন্তু, বিশ্বয়করভাবে এই গুরুত্বপূর্ণ আইনটিও এখনও খসড়া পর্যায়ে আছে। আবার এই খসড়া আইনের শিরোনামটিও সাংঘর্ষিক। কারণ কৃষিজমি সুরক্ষা আর ভূমি ব্যবহার এক বিষয় নয়। ভূমির ব্যবহার এক ব্যাপক-বিস্তর অধ্যায়। ভূমি বিষয়ে দেশে অনেক নীতি ও আইন বিদ্যমান এবং সেই সকল আইনে ভূমি ব্যবহারের বিষয়ে নির্দেশনাও রয়েছে। কিন্তু কৃষিজমি নিয়ে একক স্বতন্ত্র কোন আইন বা নীতিমালা নেই। তাই প্রস্তবিত আইনটি স্বতন্ত্রভাবে কৃষিজমি ঘিরেই হওয়া প্রাসঙ্গিক। শুধু আইন করলেই হবে না এর যথাযধথ বাস্তবায়ন জরুরি।