পার্বতীপুরে মালবাহী ট্রেন ও কাভার্ড ভ্যানের সংঘর্ষ প্রায় ৪ ঘন্টা পর ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক

প্রকাশিত: ৩:৪৫ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ১৬, ২০১৭ | আপডেট: ৩:৪৫:অপরাহ্ণ, নভেম্বর ১৬, ২০১৭
পার্বতীপুরে মালবাহী ট্রেন ও কাভার্ড ভ্যানের সংঘর্ষ প্রায় ৪ ঘন্টা পর ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক

দিনাজপুরের পার্বতীপুরে মালবাহী ট্রেন ও কাভার্ট ভ্যানের সংঘর্ষে হেলপার নিহত চালক আহত হয়েছে। ১৬ নভেম্বর বৃহস্পতিবার ভোর রাতে ঢাকা থেকে ছেড়ে যাওয়া একটি মালবাহী ট্রেন বড়পুকুরিয়া কয়লা খনি রেলগেটে পৌছালে সেখানে একটি কাভার্ডভ্যান রেল ক্রোসিং পার হওয়ার সময় এ দূর্ঘটনার স্বীকার হয়।

কিছুক্ষণ পরে রেল লাইনে পড়ে থাকা দুর্ঘটনা কবলিত কাভার্ড ভ্যানটির সাথে আবারো খুলনাগামী সীমান্ত এক্সপ্রেস ট্রেনের সংঘর্ষ হয়। পরে পার্বতীপুর-ঢাকা রুটে সব ধরনের ট্রেন চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। ঘটনার পর থেকে ক্রসিং এর লাইনম্যান আজিজুল পলাতক রয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, বৃহস্পতিবার ভোর সাড়ে ৫টায় একটি তেলবাহী ট্রেনের সাথে কাভার্ড ভ্যানের সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই বিপ্লব নামে কাভার্ট ভ্যানের শ্রমিক নিহত হয়। আহত হয় আবুল কালাম। দুর্ঘটনার পর কাভার্ড ভ্যানটি বিকল হয়ে ট্রেন লাইনের উপরে পড়ে থাকে। পরে ভোর পৌনে ৬টায় সীমান্ত এক্সপ্রেস ট্রেন আসলে আবারও সংঘর্ষ হয়। ট্রেনটি আটকা পড়লে পার্বতীপুর-ঢাকা রুটে ট্রেন চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। সকাল সড়ে ৯টায় আবারো স্বাভাবিক হয় ট্রেন চলাচল। বড়পুকুরিয়া রেল ক্রসিংটি অরক্ষিত থাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটেছে। কাভার্ড ভ্যানটি ঢাকা থেকে মাল বোঝাই অবস্থায় নীলফামারী যাচ্ছিলো।
নিহত কাভার্ট ভ্যানের হেলপার নীলফামারী জেলা শহরের আজিজুল ইসলামে ছেলে বিপ্লব (২৬)। আহত চালক আবুল কালাম(৩০) গুরুতর আহত অবস্থায় এখন রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। তার বাড়িও নীলফামারী জেলায়।

এ বিষয়ে পার্বতীপুর জিআরপি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মীর মনিরুল ইসলাম জানান, সকালে রিলিফ ট্রেন এসে দুর্ঘটনা কবলিত যানবাহন উদ্ধার করেছে। পরে সকাল সাড়ে ৯টায় ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক হয়েছে।