মেহেদিতে হাত রাঙাতে ব্যস্ত নারীরা

জি এম নিউজ জি এম নিউজ

বাংলার প্রতিচ্ছবি

প্রকাশিত: ৪:১৮ অপরাহ্ণ, জুন ১৫, ২০১৮ | আপডেট: ৪:১৯:অপরাহ্ণ, জুন ১৫, ২০১৮
মেহেদিতে হাত রাঙাতে ব্যস্ত নারীরা

কাল ঈদুল ফিতর। ঈদের এই শেষ সময়ে নারীরা ঘরে বাইরে ব্যস্ত মেহেদিতে হাত রাঙাতে। যারা সুন্দর আলপনা করে মেহেদি পরাতে পারে তাদের কদর এখন সব চেয়ে বেশি। পাড়ায় পাড়ায় কিংবা বিভিন্ন শপিংমলের সামনে এবং ভেতরের কর্নারগুলোতে নারীরা মেহেদি নিয়ে বসেছেন। একহাতে মেহেদি পরিয়ে দিতে ৫০ থেকে ১৫০ টাকা। আর দুই হাতে পরিয়ে দিতে ১০০ টাকা থেকে ৩০০ টাকা পর্যন্ত নিচ্ছেন। পার্লারগুলোও এখন এই মেহেদি পরিয়ে দেওয়ার কাজেই বেশি ব্যস্ত।মেহেদিতে হাত রাঙাতে এর ছবির ফলাফল

এখন মেহেদি হাতে লাগাতে আর আগের মতো বিড়ম্বনা পোহাতে হয় না। মেহেদি বাটায় ঝামেলাও নেই। মিহিবাটা মেহেদিই টিউবে পাওয়া যায়। ধানমন্ডির রাপা প্লাজা, জেনেটিক প্লাজা, জয়িতায় বসেছে মেহেদি পরিয়ে দেওয়ার মেলা। লালমাটিয়া থেকে তিসা এসেছেন মায়ের সঙ্গে মেহেদি পরিয়ে নিতে। দুই হাতে মেহেদি পরিয়ে নিতে ২০০ টাকা লাগবে বলে, মা তাকে বলছেন এক হাতে পরিয়ে নিতে। কিন্তু তাতেই গাল ফুলিয়ে বসে আছে তিসা। পাশে আরো সিরিয়াল নিয়ে বসে আছে রিনুত, মাইশা, বর্ষাসহ আরো অনেকে। শুধু যে ছোটরাই মেহেদি পরছেন তা নয়, হাত রাঙাতে পটু বড়রাও। ধানমন্ডি লালমাটিয়া ও মোহাম্মদপুর এলাকার বিউটি পার্লারগুলোতে ঘুরে দেখা যায়, তাদের মেহেদি পরানোর ব্যস্ততা।

তিন বোন ও ভাবি মিলে এসেছেন ফারজানা শাকিল পার্লারে, মেহেদি পরতে। তারা হাতভর্তি করে মেহেদি পরছেন। অনেকে আবার পায়েও মেহেদিতে আলপনা করে নিচ্ছেন।

শুধু যে মেহেদি পরতেই নারীরা ব্যস্ত তাই নয়, তারা মেহেদি পরার পশাপাশি ভ্রু প্লাক করে নিচ্ছেন। ফেসিয়াল করে নিচ্ছেন যে যেমনটি পছন্দ করেন। কেউবা করছেন গোল্ড ফেশিয়াল, কেউ করছেন ক্লিনআপ, নারিসিং, অরেঞ্জ, হার্বাল ফেসিয়াল করছেন নারীরা।সম্পর্কিত ছবি

ফেসিয়ালের পাশাপাশি করছেন মেনিকিওর, পেডিকিওর, চুলের যত্ন, চুলে বিভিন্ন ধরনের রঙ করানো, হেয়ার ট্রিটমেন্ট, চুলের বিভিন্ন ধরনের কাট দিয়ে নিচ্ছে নারীরা। ফ্যাশনপ্রিয় তরুণীরা ঈদ উপলক্ষে কিনছেন বিভিন্ন ধরনের পারফিউম, বডি স্প্রে, শাওয়ার জেল ইত্যাদি। পারফিউমের দাম পড়বে ৭৫০ টাকা থেকে ১৫ হাজার ৫০০ টাকা পর্যন্ত। মেয়েদের পারফিউমের ও বডিস্প্রে বিক্রি হচ্ছে বেশি।

  • ইত্তেফাক