মন্ত্রী-এমপি ও কেন্দ্রীয় নেতাদের আগমন বাড়ছে

জি এম নিউজ জি এম নিউজ

বাংলার প্রতিচ্ছবি

প্রকাশিত: ৪:১৪ পূর্বাহ্ণ, জুন ৫, ২০১৮ | আপডেট: ৪:১৪:পূর্বাহ্ণ, জুন ৫, ২০১৮
মন্ত্রী-এমপি ও কেন্দ্রীয় নেতাদের আগমন বাড়ছে

শামসুল হক ভূঁইয়া, গাজীপুর :
গাজীপুর সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন যতই ঘনিয়ে আসছে ততই মন্ত্রী এমপি ও কেন্দ্রীয় নেতাদের আগমন বাড়ছে। এতে করে উভয় জোটের মেয়র প্রার্থীর কর্মী-সমর্থকদের আস্থা ও বিশ্বাস বেগবান হচ্ছে। আগামী ২৬ জুন অনুষ্ঠিত হবে গাজীপুর সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন। আর আনুষ্ঠানিক প্রচার-প্রচারণা শুরু হবে ১৮ জুন থেকে। এখন আনুষ্ঠানিক প্রচার-প্রচারণা বন্ধ থাকলেও ইফতার ও দোয়া মাহফিলে যোগ দিয়ে গাজীপুর সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনের প্রার্থীরা দোয়া চাইছেন ও কুশল বিনিময় করছেন। এসব অনুষ্ঠানে যোগ দিচ্ছেন নিজ নিজ দলের মন্ত্রী-এমপি ও কেন্দ্রীয় নেতারা। ১৫ মে খুলনা সিটি কর্পোরেশনের সঙ্গে গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা থাকলেও উচ্চ আদালতে একটি রিটের কারণে নির্বাচন পিছিয়ে যায়। আপিল বিভাগের নির্দেশনার পর পর নির্বাচন কমিশন আগামী ২৬ জুন ভোটের দিন ঠিক করে।

নির্বাচন পিছিয়ে যাওয়ায় প্রার্থীরা হাতে অঢেল সময় পাওয়ায় তারা নির্বাচনী কৌশলও পাল্টিয়েছেন বলে জানা গেছে। প্রার্থীরা পবিত্র রমজান মাস ও পবিত্র ঈদুল ফিতরকে সামনে রেখে প্রতিদিন কয়েকটি করে দোয়া ও ইফতার এবং নিজ নিজ দলীয় শহীদদের শাহাদতবার্ষিকী অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে ভোটারদের মন জয় করার চেষ্টা চালিয়েছেন। এখন শুরু হয়েছে মন্ত্রী এমপি ও কেন্দ্রীয় নেতাদের এসব অনুষ্ঠানে উপস্থিত করে ঝিমিয়ে পড়া কর্মী-সমর্থকদের চাঙ্গা করে তুলতে। এ ছাড়া সরকার দলীয় প্রার্থী বিশেষ কৌশলে কেন্দ্রীয় নেতাদের গাজীপুরে জড়ো করছেন।

আওয়ামী লীগ মেয়র পদপ্রার্থী মো. জাহাঙ্গীর আলম রোববার টঙ্গী ও বাসনে ৩টি পৃথক ইফতার ও দোয়া মাহফিলে অংশ নেন। মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক বাসন উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে ইফতার মাহফিলে এবং দলের কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকট জাহাঙ্গীর কবির নানক এমপি মহানগরের টঙ্গীর কাদেরিয়া টেক্সটাইলস মিলস আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে শিক্ষকদের সঙ্গে মতবিনিময়ে অংশ নেন। অপরদিকে বিএনপি প্রার্থী মুক্তিযোদ্ধা হাসান উদ্দিন সরকার টঙ্গীর ৫৪ নম্বর ওয়ার্ড বিএনপির আয়োজিত সাবেক রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের ৩৭তম শাহাদাতবার্ষিকী উপলক্ষে দোয়া ও ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠানে যোগ দেন। ওই অনুষ্ঠানে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশারফ হোসেন, গাজীপুর জেলা বিএনপির সভাপতি ফজলুল হক মিলনসহ নেতারা অংশ নেন।

গাজীপুরের প্রাণপ্রিয় শ্রমিক নেতা সাবেক এমপি শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টারের ১৪তম শাহাদাতবার্ষিকী উপলক্ষে মহানগর মহিলা আওয়ামী লীগ বাসন উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে, টঙ্গী থানা আওয়ামী লীগ দলীয় কার্যালয়ে এবং ৫৬ নম্বর ওয়ার্ডে রেনেসা স্কুলে উক্ত অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

মহানগর মহিলা আওয়ামী লীগের সভানেত্রী সেলিনা ইউনুসের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক এমপি। এ ছাড়া আওয়ামী লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর কবির নানক এমপি সকালে স্বাধীনতা শিক্ষক পরিষদ গাজীপুর মহানগর শাখার উদ্যোগে টঙ্গী কাদেরিয়া টেক্সটাইলস মিলস আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে শিক্ষকদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন। এ সময় স্বাধীনতা শিক্ষক পরিষদ গাজীপুর মহানগর শাখার সভাপতি অধ্যক্ষ আলাউদ্দিন মিয়ার সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি ছিলেন আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতা গাজীপুর জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সাবেক এমপি আখতারউজ্জামান, কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক খালিদ মাহমুদ চৌধুরী, ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ সম্পাদক সুজিত রায় নন্দী, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার একান্ত সহকারী সচিব সাইফুজ্জামান শিখর, শিক্ষক নেতা শাহজাহান আলম সাজু, মোখছেদুর রহমান। এর আগেও স্থানীয় এমপির বাসবভনেও নির্বাচনকে কেন্দ্র করে কেন্দ্রীয় নেতারা ঘরোয়া বৈঠক করেন বলে জানা গেছে।

অপরদিকে মহানগরের ৫৪ নম্বর ওয়ার্ড বিএনপির আয়োজিত সাবেক রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের ৩৭তম শাহাদাতবার্ষিকী উপলক্ষে দোয়া ও ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠান হয়। অনুষ্ঠানে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশারফ হোসেন, বিএনপির সহ-স্বাস্থ্যবিষয়ক সম্পাদক ডা. রফিকুল ইসলাম বাচ্চু, কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ও গাজীপুর জেলা বিএনপির সভাপতি সাবেক এমপি একেএম ফজলুল হক মিলন, সাধারণ সম্পাদক কাজী সাইয়েদুল আলম বাবুল, বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা ডা. মাজহারুল আলম, শহীদুল ইসলাম বাবু, ওমর ফারুক সাফান, শ্রমিকদল কেন্দ্রীয় কার্যকরী সভাপতি ও জেলা বিএনপির সিনিয়র সহসভাপতি সালাহউদ্দিন সরকার উপস্থিত ছিলেন।

  • মানবকণ্ঠ