ঢাকা, ||

বীরগঞ্জে ভুল চিকিৎসায় প্রসুতির মৃত্যু বিচারের দাবিতে লাশ নিয়ে মহাসড়ক অবরোধ


রংপুর

প্রকাশিত: ৭:৫৮ অপরাহ্ণ, আগস্ট ২১, ২০১৭

আব্দুল্লাহ আল নোমান

বরগুনা প্রতিনিধি

এন.আই.মিলন, দিনাজপুর প্রতিনিধি :- দিনাজপুরের বীরগঞ্জে ভুল চিকিৎসায় প্রসুতির মৃত্যুর ঘটনায় বিচারের দাবিতে লাশ নিয়ে মহাসড়ক অবরোধ, প্রশাসনের হস্তক্ষেপে ন্যায় বিচারের আশ্বাসে ২ ঘন্টাপর সড়ক অবরোধ তুলে নেওয়া হয়েছে।
উপজেলার ভোগনগর ইউনিয়নের ভোলানাথপুর গ্রামের বাসিন্দা সিদ্দিক হোসেন ঢাকা-পঞ্চগড় মহাসড়ক সংলগ্ন বীরগঞ্জ পৌর শহরের কলেজমোড় এলাকায় অবস্থিত সিটি নাসিং হোম এন্ড ডায়াগনষ্টিক সেন্টাওে সন্তান সম্ভবা স্ত্রী নুরেজা বেগম (৩৫)কে ২০ আগষ্ট রবিবার বিকালে আল্টাসনোগ্রাম করতে নিয়ে এলে ক্লিনিকের পরিচালক ফিসারীমোড় এলাকার হাফিজ ভেন্ডারের পুত্র নুর আলমের নির্দ্দেশে ম্যানাজার মানিক ভয়দেখিয়ে দ্রুত ভর্তি হতে বলে। সহকারী পরিচালক দিনাজপুর এম রহিম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের নার্স ফাহিমা আক্তার রাত্রী ৯টায় প্রসুতিকে নিজেরাই সিজারের মাধ্যমে ১টি কন্যা শিশু বাচ্চা প্রসব করায়। রাত ৩টায় প্রসুতি শারিরিক অবস্থা খারাপ হলে তাকে দিনাজপুর এম রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গিলে ভর্তি করলে ভোরে চিকিৎসাধিন অবস্থায় নুরেজা বেগম মারা যায়।
নুরেজা বেগমের মৃত্যুর সংবাদ ছড়িয়ে পড়লে প্রসুতি বাবার বাড়ী মোহনপুর ইউনিয়নের চৌধুরীহাট এলাকা ও স্বামীর বাড়ীর এলাকার শতশত উত্তেজিত মানুষ ক্লিনিকের সামনে লাশ রেখে ২১ আগষ্ট সোমবার দুপুওে বিচারের দাবিতে ঢাকা-পঞ্চগড় মহাসড়ক আবরোধ করে রাখে।
মহাসড়কের উভয় পাশে শতশত যান-বাহন আটকা পরলে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ আলম হোসেন, পৌর মেয়র আলহাজ্ব মাওঃ মোহাম্মদ হানিফ, বীরগঞ্জ স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা অফিসার ডা. নুরুল কবির ও আবাসিক মেডিকেল অফিসার মাহমুদুল ইসলাম পলাশ, ওসি তদন্ত মছিউল গনির নেতৃত্বে একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে সান্তনা দেয়ার চেষ্টা করে ক্লিনিকে অবস্থানরত ৪ জন প্রসুতিকে সঠিক চিকিৎসা প্রদানের আশ্বাসে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে ভর্তি করে। পরিচালক ও সহকারী পরিচালক পালিয়ে গেলে ক্লিনিকে তালা লাগিয়ে দিয়ে ৪ জনকে গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে গেলে পরিস্থিতি শান্ত হয়। গ্রেফতার কৃতরা হলেন ক্লিনিকে কর্মরত আয়া আরমিনা (৩০), নাইটগার্ড আজিজার (২৮) ও সালাম (৩২)।

এ সংবাদ লেখা পর্যন্ত প্রসুতি পক্ষ বাদী হয়ে সিটি নাসিং হোম এন্ড ডায়াগনষ্টিক সেন্টার কতৃপক্ষের বিরুদ্ধে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছিল। উল্লেখ্য, এই ক্লিনিকে ইতপূর্বে ও অন্যসব ক্লিনিকে ভুল চিকিসায় অনেক রোগি মেরে ফেলার ঘটনা ঘটেছে বলে এলাকাবাসি জানিয়েছে।

Top