ঢাকা, ||

বীরগঞ্জে অন্ডকোশ চিপে ১ যুবককে হত্যা করা হয়েছে


রংপুর

প্রকাশিত: ৬:৪৮ অপরাহ্ণ, আগস্ট ২৬, ২০১৭

আব্দুল্লাহ আল নোমান

বরগুনা প্রতিনিধি

এন.আই.মিলন, দিনাজপুর প্রতিনিধি :-

দিনাজপুরের বীরগঞ্জে পরকিয়ার কারনে বিয়াইনের বাড়ী থেকে শংরার লাশ উদ্ধার করা হয়েছে।
বীরগঞ্জ থানা পুলিশ উপজেলার মোহনপুর ইউনিয়নের মিরাটুঙ্গী গ্রামের শহিদুল ইসলামের বাড়ী হতে একই এলাকার আবেদ আলীর পুত্র মছির উদ্দিন (৩৮) এর লাশ ২৬ আগষ্ট শনিবার সকালে উদ্ধার করে মর্গে প্রেরন করেছে। এলাকাবাসী সুত্রে জানাজায়, চট্রগ্রামে কর্মরত শহিদুল ইসলামের স্ত্রী বুলবুলি বেগমের সাথে মছির উদ্দিনের পরকিয়ার সম্পর্ক দীঘদিন ধরে ছিলো। শহিদুল ইসলামের অনুপস্থিতিতে মছির উদ্দিন ঐ বাড়ীতে যাতায়াত করতো।

বুলবুলি জানায়, রাত আনুমানিক ১০ টার দিকে মছির আমাদের বাড়ীতে এসে বাড়ান্দায় হাপাতে থাকে। সেবলে আমাকে খুবেই খারাপ লাগছে দয়া করে আমার বাড়ীতে সংবাদ দেন তারা আমাকে নিয়ে যাবে। তাৎক্ষনিক মছিরের বাড়ীতে সংবাদ দিলে তার পরিবারের মছিরের লাশ বাড়ীতে নিয়ে যায় এবং কিছুক্ষন পরে তা ফিরিয়ে দিয়ে যায়।

মৃত মছির উদ্দিনের ছোট ভাই মিজানুর রহমান জানায়, ২৫ আগষ্ট শুক্রবার বিকালে মছির উদ্দিন ও তার পুত্র সহেল স্থানীয় লাটের হাট বাজারে যায়, সেখান হতে আর বাড়ীতে ফিরেনি। রাত্রী সাড়ে ১২টার দিকে আমারা সংবাদ পেয়ে মছির উদ্দিনের মৃত দেহ বাড়ীতে নিয়ে গিয়ে দেখি কোমর থেকে নিচে ও হাতগুলো পানি দিয়ে ধৌত করা হয়েছে। অন্ডকোষ ফুলে গেছে ও গলায় আঘাতের চিহ্ন আছে। তারই প্রেক্ষিতে সে ভাইয়ের হত্যার ঘটনায় বাদী হয়ে শহিদুল ইসলামের স্ত্রী বুলবুলি (৩৫) ও পুত্র বুলবুল (২০) কে আসামী করে থানায় একটি অভিযোগ দাখিল করে।

সংবাদ পেয়ে বীরগঞ্জ থানার এসআই সাইদুর রহমান ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশের সুরতহাল লিপিবদ্ধ করে মৃত্যু সঠিক রহস্য উৎঘাটনের জন্য লাশ ময়না তদন্তের জন্য দিনাজপুর এম রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে প্রেরন করা হয়েছে।
অফিসার ইনচার্জ আবু আক্কাস আহমদ সংবাদের সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, থানায় একটি অস্বাভাবিক মৃত্যু মামলা রের্কড করা হয়েছে।

Top