ঢাকা, ||

ঈদ উপলক্ষে ঢাকাসহ সারাদেশে নিরাপত্তা জোরদার


জাতীয়

প্রকাশিত: ৬:৫৩ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ৩, ২০১৭

দীন মোহাম্মাদ দীনু

বাকেরগঞ্জ প্রতিনিধি

আগামী শনিবার ঈদ-উল-আযহা উপলক্ষে রাজধানী ঢাকাসহ সারাদেশের নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে। কোরবানির পশুর হাট, ঈদগাহ ময়দান, বিপনী বিতান, মার্কেটসহ ঘরমুখো মানুষের নিরাপদে যাতায়াত নিশ্চিত করতে বাস ও লঞ্চ টার্মিনাল, রেলওয়ে স্টেশনে পর্যাপ্ত নিরাপত্তামূলক ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।

মহাপুলিশ পরিদর্শক (আইজিপি) একেএম শহীদুল হক এর আগে বলেছেন, যাত্রীদের নিরাপত্তার পাশাপাশি পরিবহনের নিরাপত্তাও নিশ্চিত করা হয়েছে। মহাসড়কে বড় ধরণের কোনো যানজট নেই। মানুষ স্বস্তিতে বাড়ি ফিরছেন।

তিনি বলেন, রাজধানীর সকল পশুর হাটে পর্যাপ্ত নিরাপত্তা দেয়া হচ্ছে। কোথাও কোনো চুরি, ডাকাতি, ছিনতাই, অজ্ঞান পার্টির তৎপরতার খবর পাওয়া যায়নি। হাটে পশুসহ ক্রেতা-বিক্রেতা নিরাপদে কেনাবেচা করতে পারছেন। পশুরহাটে জাল টাকার প্রচলন রোধে পুলিশ তৎপর রয়েছে। হাটে জাল নোট সনাক্তকরণ মেশিন স্থাপন করা হয়েছে।

ঈদকে সামনে রেখে নাশকতামূলক কর্মকান্ডের কোন হুমকি নেই উল্লেখ করে পুলিশ প্রধান বলেন, সব হুমকির আশংকা মাথায় রেখেই আইনশৃঙ্খলা বাহিনী পর্যাপ্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করেছে।

ঈদুল আজহা উৎসবমুখর পরিবেশে উদ্যাপনে পুলিশ কর্মকর্তাদের নিষ্ঠা ও পেশাদারিত্বের সাথে দায়িত্ব পালন করার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

কোরবানীর পশু পরিবহণে ব্যবহৃত নৌকা ও ট্রাকে চাঁদাবাজি রোধে পুলিশ ও অন্যান্য সংস্থার সদস্যরা দায়িত্ব পালন করছে। কোরবানীর পশুর কৃত্রিম সংকটকারী, অতিরিক্ত হাসিল আদায়কারীসহ কোরবানির পশুর হাটের আইন-শৃঙ্খলা বিঘ্নকারীদের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট সংস্থার সাথে সমন্বয়ের মাধ্যমে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা হচ্ছে বলে আইজিপি জানান।

শহীদুল হক বলেন, ঢাকার পশুর চামড়া যাতে এবার বাইরে না যায় এবং ঢাকার বাইরের চামড়া যাতে সীমান্তমুখী না হয় সেক্ষেত্রে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে। এ ছাড়া বন্যা দুর্গত এলাকায় কোরবানীর গৃহপালিত পশুর নিরাপত্তার জন্য কমিউনিটি পুলিশকে কাজে লাগানো হয়েছে।

এদিকে ঢাকা মহানগর পুলিশ কমিশনার (ডিএমপি) আছাদুজ্জামান মিয়া বলেন, জাতীয় ঈদগাহ ময়দান, বাইতুল মোকাররম জাতীয় মসজিদসহ রাজধানীর ছোট বড় ঈদগাহ ময়দানে পর্যাপ্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা থাকবে।

ডিএমপি কমিশনার বলেন, মুসল্লিদের নিরাপত্তার স্বার্থে জাতীয় ঈদগাহে জায়নামাজ ও ছাতা ছাড়া অন্য কোনোকিছু নিয়ে প্রবেশ করতে দেয়া হবে না। কোনো ধরনের ব্যাগ, ভ্যানিটি ব্যাগ, দিয়াশলাই ও দাহ্য পদার্থ সঙ্গে না আনতে মুসল্লিদের তিনি আহ্বান জানান।

Top